skywalk

ডেস্ক: মাস ছয়েক হল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত ধরে উদ্বোধিত হয়েছিল ঝাঁ চকচকে দক্ষিণেশ্বর স্কাইওয়াক। এখনও পর্যন্ত গুটখার পিক ছাড়া আর কোনও বদনাম শোনা যায়নি এই ফুটব্রিজের। তবে মাত্র ৬ মাসের মাথায় এবার যে ঘটনা ঘটল তা রীতিমতো আতঙ্কের। দক্ষিণেশ্বর স্কাইওয়াকের একটি অংশে প্রায় ২০ বর্গফুট এলাকা ফুলে ফেঁপে ওঠায় আতঙ্ক ছড়াল স্কাইওয়াকের স্টলমালিকদের মধ্যে। উঠে গিয়েছে স্কাইওয়াকের মেঝেতে পাতা টালি। তবে কি কারণে এই ঘটনা ঘটেছে তার কোনও উত্তর খুঁজে পাওয়া যায়নি।

ঘটনার শুরু বুধবার সকালে স্থানীয় স্টলমালিকদের দাবি, ওইদিন জোরালো একটি শব্দ শুনতে পান তাঁরা। তারপরই দেখা যায় ফুলে উঠেছে ফুটব্রিজের মেঝে। উঠে গিয়েছে মেঝেতে পাতা টালি। ব্রিজের যে অংশে এই ঘটনা ঘটেছে সেই অংশ রেলিং দিয়ে ঘিরে রাখা হয়েছে। তবে এই ঘটনা এই প্রথমবার নয় স্থানীয়দের দাবি, এর আগেও ব্রিজের ওই অংশ ধসে গিয়েছিল। তারপর জল জমতে শুরু করে ওই জায়গায়। তবে পূর্তদফতরের কোনও ইঞ্জিনিয়র ওই এলাকায় যাননি। এই ঘটনার জেরে আগামী দিনে কোনও বড়সড় দুর্ঘটনার আতঙ্ক এড়াতে পারছেন না স্থানীয় স্টলমালিকরা। যাতায়াতও চলছে ওই অংশের পাশ ঘেঁষেই।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে ইস্পাত ও কাঁচ দিয়ে তৈরি করা শুরু হয় দক্ষিণেশ্বরের স্কাইওয়াক। এরপর ২০১৮ সালের নভেম্বর মাসে কালীপুজার ঠিক আগেই ৩৪০ মিটার লম্বা এবং সাড়ে দশ মিটার চওড়া ওই স্কাইওয়াক উদ্বোধন করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ফুটব্রিজটি তৈরি করতে সরকারের খরচ পড়ে ৬০ কোটি টাকা। কিন্তু এই বিশাল টাকা খরচ করে ফুটব্রিজ তৈরির পর মাত্র ৬ মাসে তার এই হাল চিন্তায় ফেলেছে স্থানীয়দের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here