kerala punjab national news

Highlights

  •  পিনারাই বিজয়নের দেখানো পথেই হাঁটছেন ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং
  • কংগ্রেস শাসিত আরেকটি রাজ্য ছত্তিশগড়ও চেষ্টা চালাচ্ছে এগুলিকে বাতিল করার
  • সনিয়া গান্ধীর নেতৃত্বে হওয়া বিরোধী বৈঠকে এই রণনীতি নেওয়া হয়েছে

 

মহানগর ওয়েবডেস্ক: পিনারাই বিজয়নের দেখানো পথেই হাঁটছেন ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। কেরলের পর দ্বিতীয় রাজ্য হিসেবে বিধানসভায় সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন বিরোধী প্রস্তাব পাশ করতে চলেছে কংগ্রেস শাসিত রাজ্য পঞ্জাব। শুধু তাই নয়, কংগ্রেস হাই কমান্ডের পদাঙ্ক অনুসরণ করেই এনআরসি এবং এবং এনপিআরও কাঁধ থেকে ঝেড়ে দিয়েছে পঞ্জাব সরকার। এই দুইয়েও না রয়েছে তাদের।

কংগ্রেস শাসিত আরেকটি রাজ্য ছত্তিশগড়ও চেষ্টা চালাচ্ছে এগুলিকে বাতিল করার। ২০১৯ সালের অক্টোবরের নির্দেশিকা শিকেয় তুলে কীভাবে এনপিআরে রাজ্যের অংশগ্রহণ বাতিল করা সম্ভব, তা নিয়ে পর্যালোচনা চলছে।

কংগ্রেস শাসিত রাজ্যগুলিতে বরাবরই এনআরসি নিয়ে একরোখা মনোভাব থাকলেও সিএএ এবং এনপিআর নিয়ে ততটা সমস্যা দেখা যায়নি। কিন্তু গত সপ্তাহেই সনিয়া গান্ধীর নেতৃত্বে হওয়া বিরোধী বৈঠকে নতুন রণনীতি নেওয়া হয়েছে। যে যে রাজ্যে বিজেপি সরকার নেই, সেখানে এই সিএএ, এনআরসি এবং এনপিআর-এর কড়া বিরোধিতা করতে বলা হয়েছে মুখ্যমন্ত্রীদের। কেন্দ্র সরকারকে চাপে রাখার এই কৌশলী চালকে হাতিয়ার করেই এগোতে চাইছে বিরোধী শিবিরগুলি। তারপরও অতি সক্রিয়তার সঙ্গে নড়েচড়ে বসেছে পঞ্জাব এবং ছত্তিশগড়ের মতো রাজ্য।

অন্যদিকে এদিনই আবার নয়াদিল্লিতে এনপিআর লাগু করা নিয়ে সকল রাজ্য সরকারের প্রতিনিধিদের বৈঠকে ডাক পাঠিয়েছে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা। বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ইতিমধ্যেই সেই বৈঠক বয়কট করেছেন। তৃণমূল নেত্রী সহ বাকি বিরোধীদেরও একই দাবি, এনআরসি লাগু করার প্রথম পদক্ষেপই চল এনপিআর। কেননা এই তথ্যের সত্যতা নিজেই বহুবার স্বীকার করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ যদিও দাবি করেছেন যে এনআরসি এবং এনপিআরের কোনও সম্পর্ক নেই। কিন্তু এটাও বাস্তব যে, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ইদানীং যত জায়গায় যত রকমের বক্তব্য রাখছেন, তাতে কোনটা সত্যি আর কোনটা মিথ্যে, তা গুলিয়ে ফেলছে জনতা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here