ডেস্ক: রবিবার ফাইনাল ম্যাচটি পিভি সিন্ধুর কাছে যেমন ছিল খেতাবি লড়াই, ঠিক একইভাবে প্রতিশোধেরও ম্যাচ বটে ৷ ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়নশিপের ‘অ্যাকশন রি-প্লে’ছিল থাইল্যান্ড ওপেনের এই ফাইনাল ম্যাচটি। এর আগে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে জাপানের নোজোমি ওকুহারার কাছে হারতে হয়েছিল সিন্ধুর। সেই হতাশা কাটিয়ে প্রতিশোধের দারুণ সুযোগ ছিল ভারতের তারকা শাটলারের সামনে৷ কিন্তু ফাইনালের লড়াইয়ে ২১-১৫, ২১-১৮ গেমে সিন্ধুকে হারিয়ে শিরোপার মুকুট উঠল জাপানি ওকুহারার মাথায়৷

স্বপ্নের দৌড়ে স্বপ্নের ফর্ম অব্যাহত ছিল ২৩ বছর বয়সী হায়দরাবাদী তরুণীর৷ স্বপ্নপূরণ থেকে আর মাত্র একধাপ পিছনে ছিলেন ভারতের এই তারকা শাটলার পিভি সিন্ধু৷ কিন্তু অলিম্পিকে রূপো জয়ী সিন্ধুর অশ্বমেধের দৌড় গেল প্রতিশোধের ফাইনালেই৷ অথচ, জাপানি প্রতিদ্বন্দ্বীকে রিও ওলিম্পিকের সেমিফাইনালে হারিয়েছিলেন সিন্ধু। অল ইংল্যান্ড চ্যাম্পিয়নশিপের কোয়ার্টার ফাইনালেও তাঁর বিরুদ্ধে জিতেছিলেন ভারতীয় ব্যাডমিন্টন তারকা।

উল্লেখ্য, ফাইনালের আগে ওকুহারার সঙ্গে ১০টি সাক্ষাতে সিন্ধু জিতেছেন ৫বার। অর্থাৎ, থাইল্যান্ড ওপেনের ফাইনাল ম্যাচটি ছিল কার্যত সেয়ানে-সেয়ানে লড়াই৷ এই নিয়ে চলতি বছরে তিনবার কোনও টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠেও রানার্স-আপ হয়ে সন্তুষ্ট থাকলে হল সিন্ধুকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here