বিমান বিভ্রাট থেকে বেঁচে ফিরেই মানসরোবর যাত্রার সিদ্ধান্ত রাহুলের

0
172

ডেস্ক: নয়াদিল্লির রামলীলা ময়দানে জন আক্রোশ র‍্যালিতে নিজের বিমান বিভ্রাটের ঘটনা সবিস্তারে ব্যাখ্যা করলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধি। ভাষণ দিতে উঠে প্রথম পর্যায়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে আক্রমণ করে বসে পড়েন তিনি। কিন্তু কিছুক্ষণ পরেই আবার উঠে মাইকের কাছে পৌঁছে গেলেন তিনি।

মাইকের কাছে পৌঁছে রাহুল বলা শুরু করেন, ”আপনারা সকলেই কংগ্রেসের কর্মী। আপনাদের একটা কথা বলতে চাই। প্রথমে ভেবেছিলাম বলব না। তারপর ভাবলাম নিজেদের পরিবারের মানুষদের বলেই দেই। ২-৩ দিন আগে আমরা দিল্লি থেকে কর্নাটক যাচ্ছিলাম। আমরা বিমানে ছিলাম, আচমকাই ৮ হাজার ফুট থেকে নীচে নামা শুরু করল বিমান। আমার মনে হল, এবার আমি গেলাম…” উল্লেখ্য, ২৬ এপ্রিল নয়াদিল্লির থেকে ১০ আসন বিশিষ্ট বিমান ফ্যাকন ২০০০ এয়ারক্র্যাফটের মাধ্যমে কর্নাটকের হুবলি যাওয়ার সময় ল্যান্ডিং-এর মুহূর্তে বিপাকে পড়ে রাহুলের বিমান। ল্যান্ডিং-এর সময় বিমানটি বিপদ্দজনকভাবে একদিকে ঝুঁকে যায় ও রানওয়ে থেকেও বেরিয়ে যায়।

বিমানে রাহুলের সঙ্গে উপস্থিত কংগ্রেস নেতা কৌশল বিদ্যার্থি জানান, এমন পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল যে প্রাণ সংশয়েও ভুগছিলেন তারা। এরপরই বৈদেশিক শত্রুর নাশকতার আশঙ্কায় পুলিশে অভিযোগও দায়ের করে কংগ্রেস। এই ঘটনার কথা টেনেই রাহুল বলেন, ”তখনই আমার মাথার এল যে আমি কৈলাস মানসরোবরের যাত্রা করব। কর্নাটক নির্বাচনের পর আপনাদের কাছ থেকে ১০-১৫ দিনের ছুটি নিয়ে মানসরোবরের যাত্রা করব।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here