ডেস্ক: গৃহবধূর নগ্ন স্নানদৃশ্যকে গোপন ক্যামেরায় রেকর্ড করে তা সোশ্যাল মিডিয়ায় ছাড়ার অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত যুবকের নাম ইমরুল কায়েশ। ঘটনাটি ঘটেছে মালদার কালিয়াচকের বাখরপুরে।

গৃহবধূর পরিবারের সঙ্গে ইমরুলের পরিবারের ভাল সম্পর্ক ছিল। নিয়মিত যাতায়েত ছিল দুই পরিবারের মধ্যে। সম্প্রতি, ইমরুল বাজার থেকে একটা স্পাই ক্যামেরা কিনে নিয়ে আসে। তারপর সে গৃহবধূর বাড়িতে গিয়ে সুযোগ বুঝে ক্যামেরাটি বাথরুমে লাগিয়ে দেয়। এরপরই সেই গোপন ক্যামেরায় রেকর্ড করা হয় গৃহবধূর স্নানদৃশ্য।তারপর ভিডিওটি নিজের ফেসবুকে পোস্ট করেন ইমরুল।

বিষয়টি সোশ্যাল মিডিয়াতে আসতে না আসতেই গ্রাম বাসীদের মধ্যে শোরগোল পড়ে যায়। সঙ্গে সঙ্গেই কালিয়াচক থানায় অভিযোগ দায় করে ওই গৃহবধূ। অভিযোগ পেয়েও পুলিস নির্বিকার রয়েছে, কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না বলে দাবি ওই গৃহবধূর পরিবারের। এর পাশাপাশি অভিযুক্তের পরিবারের তরফ থেকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হচ্ছে ওই গৃহবধূকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here