নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: করোনাতে মৃত্যু হলে সেই দেহকে কোনও মতেই স্পর্শ করা যাবে না। তবে দেহ দাহ করা হয়ে গেলে দেহভস্ম পরিজনদের হাতে তুলে দেবে পুরসভা। এই ঘোষণা আগেই করেছিল পুরকর্তৃপক্ষ। এবার আরও একধাপ এগিয়ে সাহসী সিদ্ধান্ত নিল কলকাতা পুরসভা। এবার করোনায় মৃত ব্যক্তির অস্থি চিতাভস্ম নিতে পারবেন পরিবারের লোকেরা। তার জন্য আগে থেকে আবেদন জানাতে হবে। কলকাতা পুরসভার এই নয়া সিদ্ধান্তের কথা জানান প্রশাসক মন্ডলীর অন্যতম সদস্য অতীন ঘোষ।

অস্থি চিতাভস্ম পাওয়ার জন্য মৃত ব্যক্তির পরিবারকে একটি আবেদন করতে হবে। এক্ষেত্রে সাব রেজিস্ট্রারের কাছে একটি চিঠি দিতে হবে মৃতের পরিবারকে। এই আবেদন পেলে মৃত্যু ব্যক্তির অস্থি চিতাভস্ম সংগ্রহ করে রাখা হবে। পরে ডেথ সার্টিফিকেট নিতে এলে, তার সাথেই অস্থি চিতাভস্ম তুলে দেওয়া হবে মৃতের পরিবারের হাতে।

এই অস্থি চিতাভস্ম সংগ্রহ করার জন্য বিশেষ পাত্র তৈরি করা হয়েছে বলে জানান কলকাতা পুরসভার প্রশাসক মন্ডলীর অন্যতম সদস্য অতীন ঘোষ। দাহ করার জন্য যে ব্যক্তিরা থাকবেন তারাই এই অস্থি চিতাভস্ম সংগ্রহ করবেন বলে জানান তিনি। এই গোটা প্রক্রিয়ার জন্য কোনও রকম টাকা দিতে হবে না মৃতের পরিবারকে। যদি কেউ এই কাজের মধ্যে দিয়ে ফায়দা লোটার চেষ্টা করে, সেক্ষেত্রে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও হুঁশিয়ারি দেন অতীনবাবু। এই বিষয়ে অভিযোগ জানানোর জন্য তাঁর নিজের মোবাইল নম্বর ও ওএসডি হেল্থ এর নম্বরে সরাসরি নাগরিকদের কাছে দিয়ে দেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের নির্দেশিকা অনুযায়ী, শেষ যাত্রায় একবারের জন্য দেখা যাবে করোনা আক্রান্ত মৃত ব্যক্তিদের। তবে সেই দেহ মোড়া থাকবে স্বচ্ছ প্লাস্টিকে। এর আগে বিশ্ব স্বাস্থ্য নিয়মক সংস্থা হু-এর নির্দেশে, করোনায় মৃতের দেহ প্লাস্টিক প্যাকেটে ভর্তি করে হাসপাতাল থেকে সরাসরি নিয়ে গিয়ে ধাপার বৈদ্যুত্তিক চুল্লিতে দাহ করা হচ্ছিল। সেক্ষেত্রে বাড়ির লোকেরা শেযকৃত্য সম্পর্কে কিছুই জানতে পারছিলেন না। সে কারণে শ্মশান পরবর্তী লৌকিক আচারের সমস্যায় পড়ছিলেন পরিজনরা। বুঝতে পারছিলেন না দাহ ক্রিয়া কখন সম্পন্ন হয়েছে। ইতিমধ্যেই অনেক মৃতের পরিবার বিষয়টি নিয়ে পুরসভায় অভিযোগ করে। তারপরেই করোনায় মৃত ব্যক্তির শেষকৃত্যের জন্য নিয়ম শিথিল করার সিদ্ধান্ত নেয় কলকাতা পুরসভা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here