kolkata news
Highlights

  • মূক ও বধির কিশোরীকে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে
  • মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের দুবরাজপুর থানার বসহরি গ্রামে
  • পুলিশ অভিযুক্ত যুবককে গ্রেফতার করেছে


নিজস্ব প্রতিনিধি, বীরভূম:
মূক ও বধির কিশোরীকে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের দুবরাজপুর থানার বসহরি গ্রামে। ঘটনায় নির্যাতিতার পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ অভিযুক্ত যুবককে গ্রেফতার করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ১৫ বছর বয়সী ওই মূক ও বধির কিশোরীকে ধর্ষণ করার অভিযোগে ওঠে শুভেন্দু হাজরা নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত যুবকের বাড়ি বসহরি গ্রাম। গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নির্যাতিতা কিশোরী তার গ্রামের এক কালী মন্দিরে বেড়াতে গিয়েছিল। অভিযোগ, একা পেয়ে অভিযুক্ত যুবক নির্যাতিতাকে একটি নির্জন গলি রাস্তায় নিয়ে যায়। সেখানে তাকে হাত-পা বেঁধে সে ধর্ষণ করে বলে। ওই নির্যাতিতার পরিবারের আরও দাবি, অভিযুক্ত যুবক নির্যাতিতার মুখে কামড়ে দিয়েছে। ঘটনার পর বাড়ি ফিরে আসে ওই নির্যাতিতা। পরিবারের লোকজন নির্যাতিতার চেহারা ও পোশাক দেখে বিষয়টি উপলব্ধি করে। এরপরই নির্যাতিতা ইশারাতে ঘটনাটি জানায় ও অভিযুক্তকে দেখিয়ে দেয়।

পরে পরিবারের পক্ষ থেকে ঘটনার লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয় থানায়। ঘটনার পর গ্রাম থেকে পালিয়ে গেলেও ওই যুবককে দুবরাজপুর থানা পুলিশ গ্রেফতার করে। নির্যাতিতাকে সিউড়ি সুপার স্পেশ্যালিটি হাসপাতালে মেডিক্যাল চেকআপ করা হয়েছে। ওই কিশোরীকে সিউড়ি আদালতে তুলে গোপন জবানবন্দি নথিভুক্ত করা হবে। এ প্রসঙ্গে বীরভূম জেলার পুলিশ সুপার শ্যাম সিং বলেন, ‘নির্যাতিতা কিশোরীর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে গ্রেফতার করা হয়েছে অভিযুক্তকে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here