ডেস্ক: দেশের শিশু ও কন্যা সন্তানদের নিরাপত্তার ব্যাপারে একমাত্র আশার আলো দেখাতে পারে রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘ। শুক্রবার নাগপুরে বিজয়া দশমীর একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিতে গিয়ে নোবেলজয়ী সমাজকর্মী কৈলাস সত্যার্থী এমনটাই জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন সমস্ত গ্রামেই ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘের শাখা সংগঠন। এরা সমাজের সমস্ত স্তরের মানুষকে বিশেষ করে শিশু ও কন্যা সন্তানদের নিরাপত্তার দিকে সবচেয়ে বেশি নজর দিচ্ছে। ফলে কোনও ভাবেই যাতে কন্যা সন্তানদের নিরাপত্তার বিষয়ে কোনওরকম গাফিলতি না থেকে সেদিকে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে।

এখানেই শেষ নয়, নোবেলজয়ী সমাজকর্মী কৈলাস সত্যার্থী আরও বলেন যে, এখন সমাজের মহিলারাই সব থেকে বেশি অত্যাচারিত। সেটা পরিবার বা কর্মক্ষেত্র যেখানেই হোক। যা মোটেই ভালো লক্ষণ নয়। ফলে মহিলা নিগৃহীত হওয়ার বিষয়টিতে বিশেষ নজর দেওয়া উচিত। পাশাপাশি দেশের মহিলাদের উপর একের পর এক অপরাধমূলক ঘটনা ঘটায় তিনি উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, ‘রক্ষকই এখন ভক্ষকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হচ্ছে। অর্থাৎ শিশু সুরক্ষা কমিটির দায়িত্ব প্রাপ্তরাই এখন শিশুদের বিপথে নিয়ে গিয়ে বিক্রি কররে দিচ্ছে। শুধু তাই নয় দেশের অধিকাংশ কন্যা সন্তান নিগৃহীত হওয়ার ভয়ে স্কুলে ভর্তি হচ্ছে না। ফলে শিক্ষা অপরিপূর্ণ থেকে যাচ্ছে। আর এই সমস্ত কর্মকান্ড আমাদের চোখের সামনেই ঘটছে। যা একেবারেই কাম্য নয়।’ তাই তিনি বলেন মেয়েদের নিরাপত্তার ব্যাপারে একমাত্র আরএসএস-ই সক্রিয় হয়ে কাজ করছে। সত্যার্থী জানান, আরএসএসের যুব সদস্যদের কাছে অনুরোধ, দেশের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম গড়ে তোলার জন্য এগিয়ে আসতে হবে। তাহলেই ভবিষ্যৎ সুনিশ্চিত হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here