মহানগর ওয়েবডেস্ক: দীর্ঘ নাটক শেষে বৃহস্পতিবার সাংবাদিক সম্মেলন করে বিধাননগরের মেয়র পদ থেকে নিজের ইস্তফার কথা ঘোষণা করেছেন সব্যসাচী দত্ত। বিদ্যুৎ ভবনের আন্দোলনকে সমর্থন করার পর টানা কয়েকদিনের নাটক শেষে ইস্তফা দেওয়ার পর আর এক আন্দোলন মঞ্চে দেখা গেল রাজারহাট নিউটাউনের বিধায়ক সব্যসাচীকে। সেটা প্রাথমিক শিক্ষকদের আন্দোলন। আর সেই মঞ্চে দাঁড়িয়ে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে একের পর এক তোপ দাগতে দেখা গেল বিক্ষুব্ধ ওই বিধায়ককে।

ন্যায্য বেতনের দাবিতে বৃহস্পতিবার ষষ্ঠ দিনে পড়েছে শিক্ষদের আন্দোলন। এই আন্দোলনের সমর্থনে এদিন সেখানে উপস্থিত হয়ে, সরকার ও শিক্ষামন্ত্রীর বিরুদ্ধে কড়া ভাষায় আক্রমণ শানান তিনি। অনশন মঞ্চে দাঁড়িয়ে তিনি বলেন, ‘মন্ত্রিরা সব ঠাণ্ডা ঘরে অথচ শিক্ষকেরা কেন রাস্তায়? কেন এখানে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে পানিয় জলের সরবরাহ? কেন ব্যবস্থা নেই শৌচালয়ের?’ তিনি আরও বলেন, ‘আন্দোলন ন্যায্য না অন্যায্য সেটা পরের বিষয়। কিন্তু নুন্যতম ব্যবস্থাটুকু থাকবে না আন্দোলনকারীদের জন্য। ওদিকে ২১ জুলাইয়ের জন্য এত আয়োজন আর এখানে এত মহিলা রয়েছেন তাদের জন্য শৌচাগারটুকু নেই।’

উল্লেখ্য, বিদ্যুৎ ভবনের আন্দোলনরত কর্মীদের সমর্থনে তাঁদের পাশে দাঁড়িয়েই সমস্যায় পড়েন বিধাননগরের মেয়র সব্যসাচী দত্ত। তাঁর বিরুদ্ধে আনা হয় অনাস্থা প্রস্তাব। যদিও সেই প্রস্তাবে ত্রুটি রয়েছে বলে আদালতের দ্বারস্থ হন সব্যসাচী। আদালতে জিতও হয় তাঁর। এরপরই বৃহস্পতিবার মেয়র পদ থেকে ইস্তফা দিয়ে সোজা অনশনরত প্রাথমিক সিক্ষকদের মঞ্চে উপস্থিত হন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here