মহানগর ওয়েবডেস্ক: আগামিকাল থেকে শুরু হতে চলেছে এবারের আইপিএল। অনেক বাধা-বিপত্তি কাটিয়ে অবশেষে আরব আমিরশাহিতে বসতে চলেছে আইপিএলের আসর। বিশ্বের সবচেয়ে ধনী ক্রিকেট লিগ না হলে এবার ভারতীয় বোর্ডের ক্ষতি হতো প্রায় ৪০০০ কোটি টাকা। আর ক্রিকেটারদেরও যে আর্থিক ধাক্কা বেশ ভালভাবেই লাগত, তা আর আলাদা করে বলতে হয় না।

আইপিএল শুরুর একদিন আগে দেখে নেওয়া যাক আট দলের অধিনায়কদের এক মরশুমে উপার্জন কত?

বিরাট কোহলি (রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু)

আইপিএলের ইতিহাসে সবচেয়ে দামি ক্রিকেটার। প্রতি মরশুমে আরসিবি অধিনায়ক আয় করেন ১৭ কোটি টাকা। এখনও পর্যন্ত আর কোনও দলের হয়ে খেলেননি কিং কোহলি। সবচেয়ে দামি ক্রিকেটার হলেও দলকে একবারও চ্যাম্পিয়ন করতে ব্যর্থ তিনি।

রোহিত শর্মা (মুম্বই ইন্ডিয়ান্স)

আইপিএলের ইতিহাসে সবচেয়ে সফল অধিনায়ক রোহিত। মুম্বইকে চারবার আইপিএল চ্যাম্পিয়ন করেছেন। প্রতি মরশুমে তিনি আয় করেন ১৫ কোটি টাকা। ২০১১ সাল থেকে মুম্বইয়ের হয়ে খেলছেন হিটম্যান।

এমএস ধোনি (চেন্নাই সুপার কিংস)

আইপিএলের ইতিহাসে সবচেয়ে ধারাবাহিক দলের অধিনায়ক মাহি। তিনিও ১৫ কোটি টাকা আয় করেন প্রতি মরশুমে। দলকে ফাইনালে তুলেছেন আটবার, চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন তিনবার।

স্টিভ স্মিথ (রাজস্থান রয়্যালস)

২০১৮ সালে ১২ কোটি টাকা দিয়ে তাঁকে রিটেন করে রাজস্থান। যদিও সেই বছর নির্বাসনের কারণে খেলতে পারেননি। গত বছর টুর্নামেন্টের মাঝপথে অজিঙ্কা রাহানের বদলে তিনি দলের অধিনায়ক হন।

ডেভিড ওয়ার্নার (সানরাইজার্স হায়দরাবাদ)

২০১৯ সালে দলের অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন থাকলেও এবছর দলের দায়িত্বে ওয়ার্নার। তিনিও প্রতি মরশুম ১২ কটি টাকা আয় করেন। গতবার আইপিএলে সর্বোচ্চ রান করেছিলেন এই অজি তারকা।

লোকেশ রাহুল (কিংস ইলেভেন পঞ্জাব)

১১ কোটি টাকায় লোকেশ রাহুলকে কেনে পঞ্জাব। এবার দলের অধিনায়কত্ব করবেন তিনি। ২০১৮ সালের অকশনে চার দলের সঙ্গে লড়াই করে তাঁকে দলে নিয়েছিল পঞ্জাব।

দীনেশ কার্তিক (কলকাতা নাইট রাইডার্স)

২০১৮ সালে যখন গৌতম গম্ভীর দল থেকে সরে দাঁড়ান, তখন সকলে ভেবেছিলেন রবিন উথাপ্পাকে অধিনায়ক করা হবে। কিন্তু শেষমেশ দলের দায়িত্ব পান দীনেশ। এখনও পর্যন্ত অধিনায়ক হিসেবে তাঁর পারফরম্যান্স সন্তোষজনক। তিনি প্রতি মরশুম আয় করেন ৭.৪ কোটি টাকা।

শ্রেয়স আইয়ার (দিল্লি ক্যাপিটালস)

দিল্লির অধিনায়ক হিসেবে অবশ্যই সকলকে চমকে দিয়েছেন শ্রেয়স। তাঁর অধিনায়কত্বেই ২০১২ সালের পর গতবার আইপিএলের দ্বিতীয় রাউন্ডে পৌঁছায় দিল্লি। প্রতি মরশুমে তাঁর আয় ৭ কোটি টাকা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here