ডেস্ক: সালটা ১৯৯৮। যোধপুরে সূরজ বারজাত্যর ছবি ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’-এর শ্যুটিং চলছে। শিকারে বেড়িয়ে দুটি কৃষ্ণসার হরিণকে গুলি করেন টাইগার, সলমন খান। রাজস্থানি আদিবাসী প্রজাতি বিষ্ণয়ী সম্প্রদায়ের কিছু লোকের চোখে পড়ে সলমনের এই অপরাধ। তাঁর উপর বন্য প্রাণী সংরক্ষণ আইন অনুযায়ী অভিযোগ দায়ের হয়। দীর্ঘ কুড়ি বছর পর দোষী সাব্যস্ত হন সলমন খান। অবশেষে গত ৫ই এপ্রিল যোধপুর জেলা ও দায়রা আদালতের বিচারপতি রবীন্দ্র কুমার যোশী সলমনের পাঁচ বছরের জেল ও ১০০০০ টাকা জরিমানা জারি করেন। রায় অনুযায়ী দুদিন কারাগারেও কারাগারেও থাকেন বলিউডের টাইগার। এরপর ৭ই এপ্রিল ৫০০০০ টাকার ব্যক্তিগত বন্ডের বিনিময়ে জামিন মজ্ঞুর হয় সলমনের।

সলমনের বিদেশযাত্রার উপরও বিধি নিষেধ জারি করে আদালত। আদালতের অনুমতি ছাড়া বিদেশ যেতে পারবেন না সলমন এমন কথা জানানো হয়। শেষপর্যন্ত মঙ্গলবার সলমনকে বিদেশ যাওয়ার অনুমতি দিলেন যোধপুর জেলা ও দায়রা আদালতের বিচারপতি চন্দ্র কুমার সোঙ্গারা। আগামী ২৫শে মে থেকে ১০ই জুলাইয়ের মধ্যে কানাডা, নেপাল এবং ইউএসএ যাবেন অভিনেতা। দ্রুতই সলমনকে দেখা যাবে ‘রেস-৩’ এবং ‘ভারত’ শীর্ষক ছবিতে। ‘ভারত’-এ সলমনের বিপরীতে দেখা যাবে প্রিয়াঙ্কা চোপড়াকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here