kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: নিজে ছুটি কাটাতে গিয়ে পানভেলের বাগানবাড়িতে আটকে গিয়েছেন সলমন খান। কিন্তু এই লকডাউনে ইন্ডাস্ট্রির কোনও মানুষের যেন অর্থাভাব না হয় কিংবা খাবারের কোনও অভাব না হয় সেই দিকে নজর রাখছেন অভিনেতা। দীর্ঘ ১ মাস ধরে প্রতিনিয়ত প্রায় ২৫,০০০ দৈনিক চুক্তির ভিত্তিতে কাজ করা কর্মচারী কিংবা দিন মজুরদের রেশন ও আর্থিক সাহায্যে করেই চলেছেন।

এমনকি সিনিয়র টেকনিশিয়ান কিংবা নবাগত পরিচালকদের আর্থিক সাহায্যে করছেন সলমন খান। তেমনই একটি ঘটনায় বলিউডের ভাইজানের প্রশংসায় পঞ্চমুখ পরিচালক মনোজ শর্মা। এদিন তিনি তার টুইটার অ্যাকাউন্টে নিজের ব্যাঙ্ক ডিটেলস শেয়ার করে জানিয়েছেন, যে তিনি সাহায্যের আবেদন না করলেও সলমন তাকে আর্থিক সাহায্যে করেছেন। এই ঘটনায় তিনি ভাইজানের কাছে কৃতজ্ঞ। তিনি এও জানিয়েছেন, সলমনের সঙ্গে তার সেভাবে কোনও আলাপ নেই, কোনওদিন কাজ করেননি একসঙ্গে, তবুও দুর্দিনে এই সাহায্যের জন্য ধন্যবাদ স্বরূপ তার সঙ্গে কাজ করতে চান মনোজ।

শুধুমাত্র ইন্ডাস্ট্রির জন্য নয়, নিজের বাগানবাড়ি এলাকার দুঃস্থ মানুষদের দৈনিক রেশন ও ডিমের ব্যবস্থা করেছেন বলিউডের ভাইজান। নিজের আগামী ছবি ‘রাধে’র পোষ্ট প্রোডাকশন কাজের জন্য বাগানবাড়িতে যান সলমন। কিন্তু মহারাষ্ট্র তথা গোটা ভারতে লকডাউন লাগু হয়ে যাওয়ায় ওইখানেই পরিবারের একাধিক সদস্যের সঙ্গে আটকে পড়েন সল্লু। আপাতত ওই বাগানবাড়িতে সলমনের সঙ্গে রয়েছেন তার দুই বোন, ভগ্নিপতি, তাদের সন্তান, অভিনেতার মা, কাকিমা, দুই ভাইয়ের ছেলে ও অভিনেত্রী জ্যাকলিন এবং বান্ধবী ইউলিয়া ভান্তুর।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here