ডেস্ক: আগের পক্ষের বিয়ে ও দুই সন্তানের খবর গোপন করে মহম্মদ সামিকে বিয়ে করেছিলেন স্ত্রী হাসিন জাহান। স্ত্রীর বিরুদ্ধে তোলা সামির এই অভিযোগের পর, এবার প্রকাশিত হল সামির ম্যারেজ সার্টিফিকেটের সেই জালিয়াতি। সেখানে দেখা গেল সামি ও হাসিনের ম্যারেজ সার্টিফিকেটের সই করার সময় অবিবাহিত জায়গায় টিক দিয়েছিলেন হাসিন জাহান। সামিকে সম্পুর্ণরুপে গোপন করে গিয়েছেন নিজের পূর্বের সম্পর্কের কথা।

জাতীয় দলের পেসার মহম্মদ সামি ও তাঁর স্ত্রী হাসিন জাহিনকে এই মুহূর্তে উত্তাল ভারতীয় ক্রিকেট সহ গোটা দেশ। এর আগে স্ত্রী জাহান সামির বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছেন সামি দেশ বিদেশের একাধিক মহিলার সঙ্গে অবৈধ সম্পর্কে লিপ্ত রয়েছে। সামির দাদার সঙ্গে স্ত্রীকে জোর করে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত করার চেষ্টা করেছেন তিনি। সামির মা ও তাঁর ভাই তাঁর উপর নির্যাতন করেছেন বলেও অভিযোগ হাসিনের। এরই মাঝে স্ত্রীকে পাল্টা দিয়েছেন মহম্মদ সামি। হাসিন জাহান তাঁর আগের বিয়ে ও সন্তানের খবর গোপন করে বিয়ে করেছেন তাঁকে। এই অভিযোগ তোলেন মহম্মদ সামি। তিনি বলেন, ‘ও বলছে, ও আমাকে তাঁর আগের বিয়ের সমস্ত খবর জানিয়েই আমাকে বিয়ে করেছিল। কিন্তু সত্যিতা এটাই, বিয়ের সময় ম্যারেজ সার্টিফিকেটে সই করার সময় ও নিজেকে অবিবাহিত দাবি করে ব্যাচেলার বক্সে টিক দেয়।’

সামির আরও দাবি, ‘ও আগের পক্ষের দুই সন্তান প্রসঙ্গে ও জানিয়েছিল ওরা হাসিনের বোনের মেয়ে। পড়ে অবশ্য জানতে পারি আমি। এত কিছু গোপন করা সত্তেও ওঁর আগের পক্ষের সন্তানরা আমার থেকে কোনও রকম অমর্যাদা পায়নি। আমি সর্বদা ওদের খেয়াল রাখি। আমার থেকে একজন বাবার সত্যিকারের ভালবাসাই ওরা পেয়েছে। এমনকি, আমার পরিবারের কেউই জানে না ওই দুই সন্তান ওঁর আগের পক্ষের সন্তান। তাঁরা জানে এরা হাসিনের বোনের মেয়ে।’

তবে হাসিনের এই সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন হাসিনের আইনজীবী। তাঁর দাবি, ‘সামি এই সব অভিযোগ আগে আনতে পারত। তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের হওয়ার পর এই অভিযোগ আনছেন উনি। যা মিথ্যে। আগের বিয়ের সবটাই জানতেন সামি।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here