মোদী-শাহ ‘অনুপ্রবেশকারী’ হলে ‘ইতালীয়’ মহিলা কী? অধীরকে সওয়াল সম্বিতের

0
kolkata news bjp bengali

মহানগর ওয়েবডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকেই ‘অনুপ্রবেশকারী’ বলে দেগে দিয়েছিলেন কংগ্রেস সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী। সোমবার এই নিয়ে ব্যাপক বাদানুবাদ শুরু যায় বিজেপি ও কংগ্রেস উভয় পক্ষের মধ্যেই। গেরুয়া শিবিরের দাবি, এই ‘অবমাননাকর’ মন্তব্যের জন্য লোকসভায় ক্ষমা চাইতে হবে অধীরকে। এবার লোকসভার কংগ্রেস দলনেতা তথা বহরমপুর সাংসদের উদ্দেশে পাল্টা প্রশ্ন ছুড়ল বিজেপি।

রবিবার এএনআইকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে অধীর বলেছিলেন, ‘ভারত কারোর একার সম্পত্তি নয়।’ সংবাদ সংস্থা এএনআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তাঁকে বলতে শোনা যায় , ‘হিন্দুস্থান সকলের। এটা কি কারোর একার সম্পত্তি নাকি? এখানে প্রত্যেকের সমান অধিকার রয়েছে। অমিত শাহজি, নরেন্দ্র মোদীজি, আপনারা নিজেরাই অনুপ্রবেশকারী। বাড়ি-ঘর আপনাদের গুজরাট, আর আপনারা চলে এলেন দিল্লি। আপনারা তো নিজেরাই ‘উদ্বাস্তু’। মূলত জাতীয় নাগরিকপঞ্জী বিল (এনআরসি) নিয়ে কথা বলতে গিয়েই এই মন্তব্য করেছিলেন অধীর। এই মন্তব্যে যারপরনাই চটেছে বিজেপি শিবির।

এই মন্তব্যের পাল্টা দিয়ে বিজেপির মুখপাত্র সম্বিত পাত্র মুখ খুলেছেন। কংগ্রেস সভানেত্রীকে নিশানায় নিয়ে তিনি বলেছেন, ‘গুজরাটিরা অনুপ্রবেশকারী হলে ইতালীয় মহিলা কী?’

রাজ্যসভায় অমিত শাহ লাগাতার এনআরসি নিয়ে চাপ বাড়ানোর কারণেই অধীর চৌধুরী এই বক্তব্য দিলেন বলে মনে করা হচ্ছে। অমিত শাহের বক্তব্য ছিল, একটি সম্প্রদায় বাদে আর কোনও সম্প্রদায়ের ভয় পাওয়া কোনও কারণ নেই। তবে অসমে এনআর সি করতে গিয়েই কেন্দ্রীয় সরকার যেভাবে বিপাকে পড়েছে, এরপর দেশের অন্যান্য রাজ্যে বিষয়টি নিয়ে কল্পনা করলেও কতটা বিপাকে পড়তে হবে সেটাই ভাবাচ্ছে সাধারণ মানুষকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here