ডেস্ক: কারনি সেনার বিক্ষোভ ও অভিযোগের পরে এবার বলিউড অভিনেত্রীর কড়া ভাষায় আক্রমন ‘পদ্মাবত’ নিয়ে। অভিনেত্রী স্বরা ভাস্কর একেবারে চাঁচাছোলা ভাষায় আক্রমণ করেন ছবিটি নিয়ে।তিনি বলেন, “বিধবা, ধর্ষিতা, গর্ভবতী, প্রৌঢ়া বা যুবতি, সব ধরনের মহিলাদের বেঁচে থাকার উপরই প্রশ্নচিহ্ন এঁকে দিল পদ্মাবত।”গতকাল প্রকাশিত এক খোলা চিঠিতে, সতীদাহ ও জওহর প্রথাকে গৌরবান্বিত করার জন্য ছবিটির নিন্দায় সরব হন এই অভিনেত্রী। তাঁর ক্ষোভের কারণ হল পদ্মাবত নিয়ে অন্য দর্শকদের মতো কৌতূহলী ছিলেন তিনিও। তাই, “ফার্স্ট ডে ফার্স্ট শো” দেখতে গিয়েছিলেন। কিন্তু, ছবিটি দেখে এতটাই হতাশ হন যে পরিচালককে চিঠি লিখে তা জানাবেন বলে ঠিক করেন। স্বরা চিঠিতে লিখেছেন,“আপনার কালজয়ী ছবিটি দেখার পর মনে হয়েছে মহিলারা যোনিসর্বস্ব। মনে হয়েছে আমি নিজেও যেন একটি যোনি মাত্র। মনে হয়েছে এতদিন ধরে মহিলারা ছোটো ছোটো যে বিষয়গুলিতে সাফল্য পেয়েছে, সবটাই যেন বৃথা। ভোটাধিকার পাওয়া, সম্পত্তির অধিকার পাওয়া, শিক্ষা, কর্মক্ষেত্রে সমানাধিকার, মাতৃত্বকালীন ছুটি, বিশাখা আইন বা সন্তান দত্তক নেওয়ার মতো অধিকার পাওয়ার যেন কোনও দামই নেই। আমরা যেন সেই প্রাচীনকালে ফিরে গেছি।”

স্বরা চিঠিতে লিখেছেন,“আপনার কালজয়ী ছবিটি দেখার পর মনে হয়েছে মহিলারা যোনিসর্বস্ব। মনে হয়েছে আমি নিজেও যেন একটি যোনি মাত্র। মনে হয়েছে এতদিন ধরে মহিলারা ছোটো ছোটো যে বিষয়গুলিতে সাফল্য পেয়েছে, সবটাই যেন বৃথা। ভোটাধিকার পাওয়া, সম্পত্তির অধিকার পাওয়া, শিক্ষা, কর্মক্ষেত্রে সমানাধিকার, মাতৃত্বকালীন ছুটি, বিশাখা আইন বা সন্তান দত্তক নেওয়ার মতো অধিকার পাওয়ার যেন কোনও দামই নেই। আমরা যেন সেই প্রাচীনকালে ফিরে গেছি।”যদিও চিঠির শুরুতে নানা বাধা কাটিয়ে পদ্মাবত মুক্তি পাওয়ায় পরিচালক বনশালিকে অভিনন্দন জানান তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here