মহানগর ওয়েবডেস্ক: গোটা বিশ্বে পুরুষ অভিনেতাদের তালিকায় আয়ের নিরিখে চার নম্বরে রয়েছেন অক্ষয় কুমার। যা বলিউড তথা ভারতীয় সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির জন্য বড় পাওনা বলাই যায়। এদিন প্রকাশ্যে এসেছে বিশ্বের সবচেয়ে বেশি আয়ব্যহুল ও পারিশ্রমিক প্রাপ্ত নায়িকাদের তালিকা। কিন্তু হতাশা জনক ভাবেই ভারত তথা বলিউড থেকে কাউকেই দেখা যায় নি এই তালিকায়। বলিউডের নিরিখে গ্লোবাল স্টার হিসাবে ধরা হয় প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও দীপিকা পাডুকোনকে। যারাই বলিউডের পাশাপাশি হলিউডে কাজ করেছেন। ২০১৮ সালে দীপিকার ‘পদ্মাবত’ মুক্তি পায় কিন্তু প্রিয়াঙ্কার হলিউড কিংবা বলিউডে কোনও সিনেমাই মুক্তি পাই নি।

তাই এবারেও ফোর্বসের তালিকায় নাম নেই তাঁদের। চলতি বছরের ফোর্বসের ধনি নায়িকাদের তালিকায় আবারও প্রথম হয়েছেন স্কারলেট জোহানসন। মূলত মার্ভেল সিরিজের সিনেমা ও তাঁর পকেটে অস্কার থাকায় ২০১৮-পর ফের একবার তালিকার শীর্ষে রয়েছেন স্কারলেট। জুলাই ২০১৮ থেকে জুলাই ২০১৯ পর্যন্ত তাঁর মোট আয় ৪০০ কোটি টাকা। এই তালিকায় দ্বিতীয় হয়েছেন সোফিয়া ভারগেরা। তাঁর মোট আয় ৩১৫ কোটি টাকা আর তৃতীয় হয়েছেন রেসে উইথার্স্পুন। তাঁর মোট আয় ২৫০ কোটি টাকা। তবে অভিনেতাদের নিরিখে ভারতীয় অভিনেত্রীরা কোনওভাবেই বলিউডে কোনও স্থান পাননি।

বলিউড থেকে চলতি বছরে শুধুমাত্র অক্ষয় কুমার নায়কদের মধ্যে চতুর্থ হয়েছেন। তাঁর মোট আয় গত একবছরে প্রায় ৪৬৬ কোটি টাকা। মূলত বলিউডে এই ঘটনার জন্য দায়ী পারিশ্রমিকে বৈষম্য। এমনটাই মনে করছেন ট্রেড অ্যানালিসিস্টরা। তাঁদের দাবি বলিউডে নায়কদের তুলনায় নায়িকাদের পারিশ্রমিক কম দেওয়া হয় যার জন্য এই পার্থক্যটা রয়েই যায়। কাজের কথা বলতে গেলে দীপিকা আপাতত ব্যস্ত কবীর খানের ‘৮৩’ নিয়ে। যেখানে তাঁকে কপিল দেবের স্ত্রী রোমি দেবের চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে। এছাড়াও তাঁর প্রথম প্রযোজিত সিনেমা ‘ছাপ্পাক’ মুক্তি পাবে আগামী বছর। হলিউডের প্রজেক্ট ছাড়াও প্রিয়াঙ্কার হাতে রয়েছে বলিউডে সোনালি দ্য বোসের সিনেমা ‘দ্য স্কাই ইজ দ্য পিঙ্ক’।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here