Home Featured ‘অ্যান এরা অব ডার্কনেস’ বইয়ের জন্য সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পেলেন শশী থারুর

‘অ্যান এরা অব ডার্কনেস’ বইয়ের জন্য সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পেলেন শশী থারুর

0
‘অ্যান এরা অব ডার্কনেস’ বইয়ের জন্য সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পেলেন শশী থারুর
Parul

মহানগর ওয়েবডেস্ক: রাজনীতিতে তুখোড় তিনি। মাঝে মধ্যে একটু আধটু হাস্যকৌতুকেও তাঁর জুড়ি মেলা ভার। তাঁর ইংরেজির অর্থ খুঁজতে সাংবাদিকদের ডিক্সেনারির পাতা উল্টাতেও বাধ্য করেন তিনি। কংগ্রেসের এহেন সাংসদ শশী থারুরের মুকুটে জুড়ল আরও এক নয়া পালক। ‘অ্যান এরা অব ডার্কনেস’ বইয়ের জন্য এবারের সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার নিজের ঝুলিতে পুরে নিলেন থারুর।

দেশের রাষ্ট্রভাষাগুলিতে অসামান্য কৃতিত্বের জন্য ১৯৫৪ সাল থেকে দেওয়া হয় ভারত সরকার বিভিন্ন কবি সাহিত্যিকদের এই সাহিত্য অকাদেমি ফেলোশিপ পুরস্কার দিয়ে আসছে। ভারত সরকার প্রদত্ত দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সম্মান হিসাবে ধরা হয় এই পুরস্কারকে। বুধবার সেই সংস্থার তরফে জনিয়ে দেওয়া হল এবার ইংরেজি ভাষায় লেখা নন ফিকশন বই ‘অ্যান এরা অব ডার্কনেস’-এর জন্য এই পুরস্কার পাচ্ছেন সাহিত্যিক শশী থারুর। শশী থারুরের পাশাপাশি হিন্দিতে লেখা কবিতার বই ‘ছিলাতে হুয়ে আপনে কো’-র জন্য পুরস্কৃত হয়েছেন কবি নন্দকিশোর আচার্য। ‘ঘুমের দরজা ঠেলে’ প্রবন্ধের জন্য পুরস্কার পেয়েছেন বাঙালি অধ্যাপক চিন্ময় গুহ। সাঁওতালি ভাষায় লেখা ছোট গল্পের বই ‘শিশিরজালি’-র জন্য সাহিত্য অকাদেমি পেয়েছেন গল্পকার কালীচরণ হেমব্রম।

জানা গিয়েছে, ব্রিটিশ শাসনের অন্ধকারতম দিকগুলি নিয়ে রচিত হয়েছে শশী থারুরের বই ‘অ্যান এরা অব ডার্কনেস’। ব্রিটিশ শাসনকালে ভারত যেভাবে ধীরে ধীরে অন্ধকারের পথে এগিয়ে যেতে থাকে সেই বিষয়গুলি তুলে ধরা হয়েছে এই বইতে। দেশজ বস্ত্র উৎপাদন, বাণিজ্য সব ক্ষেত্রেই যেভাবে প্রভাব বিস্তার করছিল ব্রিটিশরা তার বিস্তারিত ব্যাখ্যা রয়েছে বইটিতে। উল্লেখ্য, রাজনৈতিক জীবনের পাশাপাশি সাহিত্য জীবনও বেশ চর্চিত শশী থারুরের। তাঁর লেখা ‘রায়ট’ ও ‘দ্য গ্রেট ইন্ডিয়ান নোভেল’ সাহিত্যমহলে বেশ চর্চিত কিছু বই। ‘দ্য গ্রেট ইন্ডিয়ান নোভেল’ বইটির জন্য ১৯৯১ সালে কমনওয়েলথ রাইটার্স পুরস্কার পেয়েছিলেন শশী। এছাড়াও তিনি লিখেছেন, ‘হোয়াই আই অ্যাম এ হিন্দু’, ‘দ্য প্যারাডক্সিয়াল প্রাইম মিনিস্টার’, ‘দ্য প্রাইড অব ইন্ডিয়া’-এর মতো আসামান্য কিছু বই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here