ডেস্ক: তদন্তকারী অফিসার মহিলা, তাই তাঁর যোগ্যতা নিয়েই প্রশ্ন তুলে দিলেন কাঠুয়া গণধর্ষণ মামলায় অভিযুক্তদের আইনজীবী। আসিফা কাণ্ডে যে তদন্তকারী দল গঠন হয়েছে সেই দলে একমাত্র মহিলা তদন্তকারী অফিসার পদে নিযুক্ত রয়েছেন শ্বেতাম্বরী শর্মা। কিন্তু অভিযুক্ত পক্ষের আইনজীবীর দাবি, তদন্তকারী অফিসার যেহুতু মহিলা, তাই তদন্ত করার মতো ন্যূনতম বুদ্ধিও নাকি তাঁর মাথায় নেই।

৮ বছরের ছোট্ট আসিফার গণধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছে ৮ জন অভিযুক্তকে। কিন্তু এই ৮ অভিযুক্তদের মধ্যে ৫ জনের নির্দোষ এই দাবির মর্মে আদালতে সওয়াল করছেন আইনজীবী অঙ্কুর শর্মা। এই প্রসঙ্গে কথা বলতে গিয়ে সংবাদ মাধ্যমকে তিনি বলেন, ”কে এই শ্বেতাম্বরী? একজন মহিলা। ওঁর মাথায় কতটুকুই বা বুদ্ধি থাকবে? অনেকেই ওকে ভুল পথে চালিত করছে। কিছু সারকামস্ট্যানসিয়াল এভিডেন্স দেখিয়ে ওকে বিশ্বাস করতে বাধ্য করা হচ্ছে যে অপরাধ হয়েছে।”

অন্যদিকে, এই ঘটনার তদন্তে নামার পর থেকেই তদন্তকারী অফিসার শ্বেতাম্বরী দাবি করছেন তাঁকে পদেপদে বাধার সম্মুখীন হতে হচ্ছে। তদন্তের কাজও তাঁকে ঠিকমতো করতে দেওয়া হচ্ছে না বলে মারাত্মক অভিযোগ করেছেন তিনি। মহিলা অফিসারের এই দাবিকে উড়িয়ে দিয়ে অভিযুক্ত পক্ষের আইনজীবী অঙ্কুর জানান, তদন্তকারী অফিসারেরা তো মন্ত্রী-আমলাদেরই হাতের পুতুল। তবে উঁচু স্তরের অফিসারদের তিনি জানাচ্ছেন না কেন? অঙ্কুর শর্মার আরও দাবি, অভিযুক্তদের উপর নির্যাতন চালিয়ে তাদের অপরাধ কবুল করাচ্ছে পুলিশ।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here