ডেস্ক: ফিল্মি দুনিয়ায় সুযোগ করিয়ে দেওয়ার লোভ দেখিয়ে মহিলাকে কুপ্রস্তাব দেওয়ার অভিযোগে গ্রেপ্তার এক ব্যক্তি৷ অভিযুক্তের নাম অর্ণব রায় শুক্রবার রাতে অর্জুনপুর থেকে গ্রেফতার করে স্থানীয় থানার পুলিস।

পুলিশ সূত্রের খবর, বছর তিনেক আগে অর্ণব রায় নামে ওই ব্যক্তিটির সঙ্গে মহিলার আলাপ বাগুইহাটির এক বেসরকারী স্কুলে৷ সেখানে অর্ণবের ছেলে এবং তাঁর মেয়ে একসঙ্গেই পড়াশুনা করত৷ মহিলাটিকে নিজে শর্ট ফিল্মমেকার বলে পরিচয় দিয়েছিলেন অর্ণব এবং তাঁকে নিয়ে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্যের ছবিও বানাতে চাইছিলেন৷ অভিযোগ, প্রথমদিকে তাঁর সঙ্গে অর্ণব ভদ্রভাবে ব্যবহার করলেও পরে সে শারীরিক সম্পর্ক স্থাপনের প্রস্তাব দেয়৷ কিন্তু সেটি না মানায় ফোনে দিনের পর দিন ভয় দেখাতে থাকে অর্ণব৷ এমনকী প্রাণনাশেরও হুমকি দেন তিনি৷

বছরখানেক আগে অর্ণবের ব্যবহারে বীতশ্রদ্ধ হয়ে ২০১৬ সালে ফোনের নম্বর পাল্টে ফেলেন অভিযোগকারিনী৷ কিন্তু এতেও থেমে থাকেনি অভিযুক্তে দৌরাত্ম৷ মহিলা একটি বেসরকারী হাসপাতালে চাকরি করতেন৷ সেখানেও ফোন করে হুমকি দিতে শুরু করে অর্ণব৷ এমনকী হাসপাতাল কতৃপক্ষকে মহিলার বিরুদ্ধে একাধিক মিথ্যা অভিযোগ জানায়৷ পরবর্তীকালে বিষয়টি আদালত পর্যন্ত গড়ালে সেখানে তিনি জিতে যান৷ এতে আরও ক্ষেপে যায় ব্যক্তিটি৷ দিনকয়েক আদে মহিলার বাড়ি গিয়ে চড়াও হন অর্ণব, যদিও সেই সময় অনুপস্থিত ছিলেন তিনি ফলে তাঁকে না পেয়ে তাঁর শাশুড়িকে হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ৷ পাশাপাশি মহিলার শ্বশুরবাড়ির এলাকা থেকে শুরু করে তাঁর কর্মস্থান সবজায়গায় মহিলার চরিত্র সম্পর্কে নানান মন্তব্য করতে শুরু করেন৷

অবশেষে কার্যত অধৈর্য হয়ে পরে বাগুইহাটি থানায় এবং তপসিয়া থানায় অর্ণব রায়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ করা হলে শুক্রবার তাঁকে গ্রেপ্তার করেন পুলিশ৷ মহিলাটি আরও জানান যে অর্ণবের সঙ্গে পুরো ঘটনাতে তাঁর স্ত্রীও জড়িত৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here