ডেস্ক: স্ত্রীর রত্না চট্টপাধ্যায়ের সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদের আর্জি নিয়ে ইতিমধ্যেই আদালতের দ্বারস্ত হয়েছেন কলকাতার মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়। এছাড়া স্ত্রীর বিরুদ্ধে একাধিক মামলাও দায়ের করেছেন তিনি। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তাঁর পারিবারিক টানাপোড়েনের প্রভাব এসে পড়েছে তাঁর রাজনৈতিক জীবনেও। তৃণমূল সুপ্রিমো তথা শীর্ষ স্থানীয় নেতাদের কাছে কিছুটা হলেও কোণঠাসা শোভনবাবু। দলের তরফে পারিবারিক এই সমস্যা নিজেদের মধ্যে মিটিয়ে নেওয়ার নির্দেশ শোভনবাবুকে দেওয়া হলেও সে কথা কানে তোলেননি মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়। এরই মাঝে একবার ফের স্ত্রীর রত্না দেবীর বিরুদ্ধে নতুন অভিযোগ আনলেন তিনি।

সূত্রের খবর, পর্ণশ্রীতে নিজের পৈত্রিক বাড়িতে মেয়রের ঢোকা বন্ধ করে দিয়েছে কলকাতা পুলিশ। যার ফলে ওই বাড়িতে বর্তমানে ঢোকার অনুমতি নেই শোভনবাবুর। তবে শোভন বাবুর অভিযোগ, ‘তাঁর পৈতৃক বাড়িতে বহু মূল্যবান সম্পত্তি রয়েছে। রয়েছে বেশকিছু গুরুত্বপূর্ণ মামলার নথিও। বাড়িতে নিরাপত্তারক্ষী থাকলেও তাঁদের রীতিমতো হুমকি দেওয়া হচ্ছে। সেইসঙ্গে বাড়িতে ঢুকছে বেআইনি কাজের সঙ্গে যুক্ত বহু ব্যক্তি। এতে বিঘ্নিত হচ্ছে বাড়ির নিরাপত্তা আর এই সমস্ত কিছুই চলছে স্ত্রী রত্না দেবীর অঙ্গুলিহেলনে।’ অবিলম্বে এই বিষয়ে প্রশাসনের পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন তিনি।

উল্লেখ্য, কিছুদিন আগেই লালবাজার সাইবার পুলিশের কাছে মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায় অভিযোগ দায়ের করেছিলেন তাঁর নামে ভুয়ো জিএসটি অ্যাকাউন্ট খুলেছে কেউ। সেই অভিযোগে ভিত্তিতে ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। এরইমাঝে পারিবারিক সমস্যায় জর্জরিত মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায় নতুন অভিযোগ দায়ের করলেন স্ত্রী রত্না দেবীর বিরুদ্ধে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here