kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি, বর্ধমান: কাটোয়া মহকুমা হাসপাতালের এক আধিকারিকের বিরুদ্ধে হাসপাতালের অভ্যান্তরে একটি ঘরে এক মহিলার সঙ্গে অভব্য আচরণ ভিডিয়ো ভাইরাল হল। শীতের সময়ে তোলা ওই ভিডিয়ো-কে ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়াল জেলা জুড়ে। আচমকাই এই ভিডিয়ো ভাইরাল হওয়ার ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই আত্মহত্যার চেষ্টা করলেন ওই আধিকারিক। কাটোয়ার তৃণমূল বিধায়ক রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন, এই ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করা হচ্ছে। ঘটনা সত্যি হলে অবশ্যই ওই আধিকারিকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

অপরদিকে, কাটোয়া হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই আধিকারিকের অবস্থা এখন স্থিতিশীল। জানা গিয়েছে, সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ৫৩ সেকেন্ডের ভিডিয়ো ভাইরাল হয়৷ ভিডিয়োটি প্রাথমিক ভাবে সিসিটিভি ফুটেজ বলেই মনে হচ্ছে।  সেই ফুটেজে দেখা যাচ্ছে, ওই মহিলা দাঁড়িয়ে রয়েছেন একটি টেবিলের সামনে। ঘরে ঢুকে ওই আধিকারিক ওই মহিলার পেছন দিকে পায়ের কাছে বসে পড়লেন। এরপর ওই মহিলার কাপড় তুলে তাঁর ডান দিকের নিতম্বে চুম্বন করলেন। এরপর ওই মহিলার সঙ্গে সামান্য কথা বলছেন। তারপরই বেরিয়ে যান।

এদিকে, ভিডিয়তে দেখা গিয়েছে ওই আধিকারিকের পরনে হলুদ রঙের সোয়েটার রয়েছে। স্বাভাবিক ভাবেই এই ছবি শীতের সময়ে তোলা। প্রশ্ন উঠেছে, এতদিন পর কেন এই ভিডিয়োটি ভাইরাল করা হল? যদিও হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই আধিকারিকের বিরুদ্ধে ইতিপূর্বেও চাকরি দেওয়ার নাম করে অনৈতিক কাজ করার অভিযোগ উঠেছে। যদিও গোটা বিষয়টি নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছেন স্বাস্থ্যদফতরের কর্তারা। জেলা প্রশাসনের আধিকারিকরাও কোনও কিছু বলতে চাননি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here