kolkata bengali news

নিজস্ব প্রতিবেদক, বারুইপুর: প্যারা কমনওয়েলথ গেম জুডোতে ব্রোঞ্চ জিতলেন নরেন্দ্রপুর ব্লাইন্ড বয়েস একাডেমির ছাত্র বুদ্ধদেব জানা। সুদূর ইংল্যান্ড গিয়ে অংশ গ্রহণ করে বুদ্ধদেব তৃতীয় স্থান পেয়েছেন। বুধবার রাতে ভারতের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করে ফাইনালে এই কৃতিত্ব অর্জন করেন।

অন্যদিকে ভারতেরই এক প্রতিযোগী ওয়েট লিফটিং (৬০ কেজি) গ্রুপে সোনা জিতেছেন আর বুদ্ধদেব জিতেছেন ব্রোঞ্চ। ছোট থেকেই বুদ্ধদেবের চোখের দৃষ্টি কম ছিল। পশ্চিম মেদিনীপুরের নয়াচরের জানা পরিবারের ছেলে বুদ্ধকে তাই ভর্তি করা হয়েছিল ব্লাইন্ড স্কুলে। তৃতীয় শ্রেণিতে বুদ্ধদেব জানা ভর্তি হয়েছইলেন নরেন্দ্রপুরে। এখানেই শিক্ষা ও বেড়ে ওঠা। এখন বুদ্ধদেব দ্বাদশ শ্রেণির কলা বিভাগে পাঠরত কিন্তু বেশ কিছু মাস ধরে বুদ্ধদেব জুডোতে অসাধারণ পারদর্শিতা দেখান। জাতীয়স্তরের প্যারা গেমসে গোরক্ষপুর থেকে জুডোতে সোনা জয় করেন বুদ্ধদেব। আর তারপরেই তার জীবনের লক্ষ্য ঘুরে যায়। জুডোতে দেশের হয়ে ভাল কিছু করার স্বপ্ন দেখতে থাকেন কৃষক পরিবারের এই ছাত্র। আর তারপরেই স্কুলের সহযোগিতায় প্যারা কমলওয়েলথ গেমে ৬০ কেজি ওয়েট লিফটিং গ্রুপে জুডোতে অংশ নিয়েছিলেন বুদ্ধদেব।

ইংল্যান্ডের এই প্যারা কমনওয়েলথ গেম শুরু হয়েছে বুধবার থেকে। নরেন্দ্রপুর ব্লাইন্ড বয়েজ একাডেমি থেকে প্রথম এবং রাজ্যেও বুদ্ধদেব জানাই প্রথম অন্ধ ছাত্র হিসাবে প্যারা কমনওয়েলথ গেমসের জুডোতে ভারতের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করে। প্রশিক্ষক দিব্যেন্দু হাটুয়ার কাছে বিনা পয়সায় জুডোতে প্রশিক্ষণ নিতেন বুদ্ধদেব। নিজেই জানান, দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করে ব্রোঞ্চ জয় করে শনিবার দেশে ফিরছেন বুদ্ধদেব। তার এই সাফল্যে খুশি স্কুলের শিক্ষক থেকে মহারাজ সবাই। সোমবার তাঁর সম্বর্ধনার ব্যবস্থা করা হচ্ছে বলে জানানো হয় স্কুল কর্তৃপক্ষের তরফে। এবার টোকিও অলিম্পিকে যাওয়ার ইচ্ছা বলে জানিয়েছেন বুদ্ধদেব।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here