kolkata bengali news

Highlights

  • অপমানে আত্মঘাতী ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী
  • ঘটনাটি ঘটেছে রিজেন্ট পার্ক থানা এলাকার বাঁশদ্রোণীর কালিতলা পার্কে
  • মৃতার জেঠুর উদ্দেশ্য মিলেছে সুইসাইড নোট

 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: মার্কশিট নিয়ে বাড়িতে ও স্কুলে বকাঝকা করায় গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী হল বাঁশদ্রোণীর বাসিন্দা ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রী। শনিবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে রিজেন্ট পার্ক থানা এলাকার বাঁশদ্রোণীর কালিতলা পার্কে। ওই ছাত্রীর দেহ উদ্ধার করে এম আর বাঙ্গুর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসকরা। তার ঘর থেকে উদ্ধার হয়েছে জেঠুর উদ্দেশ্য লেখা একটি সুইসাইড নোট। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে রিজেন্ট পার্ক থানার পুলিশ।

kolkata bengali news

শনিবার সকাল আটটা নাগাদ বাঁশদ্রোণীর কালিতলা পার্কের একটি বাড়িতে উদ্ধার হয় ষষ্ঠ শ্রেণীর এক ছাত্রীর ঝুলন্ত দেহ। বহু বছর ধরে সে তার জেঠুর বাড়িতেই থাকতো এবং পড়তো। নিজের জেঠুই ছিলেন তার গৃহশিক্ষক। সূত্রের খবর, ছোট থেকেই পড়াশোনায় অত্যন্ত মেধাবী ছিল ওই ছাত্রী। তবে চলতি বছর তার পরীক্ষার ফল তুলনামূলক খারাপ হওয়ায় এমনিতেই মন খারাপ ছিল তার। জানা গিয়েছে মার্কশিটে বেশ কিছু ভুলভ্রান্তি থাকায় স্কুলের প্রধান শিক্ষক কয়েকজনের উপস্থিতিতে মার্কশীট সংশোধন করে দিয়েছিলেন। জানা গিয়েছে তারপরেও স্কুলের সপ্তম শ্রেণীতে ভর্তি হতে গেলে মার্কশিটে বেশ কিছু কাটাকুটি দেখে তাকে সন্দেহ করে অপমান করা হয় বলে সুইসাইড নোটে অভিযোগ করেছে ওই ছাত্রী। তার ঘর থেকে উদ্ধার হওয়া সুইসাইড নোটে ওই ছাত্রী আরো লিখেছে, তার মার্কশিটে কাটাকুটি থাকায় বন্ধুদের সামনে অপমানিত হয়েছে তাকে। একই শ্রেণীতে পড়া দুই সহপাঠীও এই নিয়েও তাকে ব্যঙ্গ ও অপমান করেছে বলে অভিযোগ করে গেছে ওই ছাত্রী। এই নিয়ে বাড়িতেও বাবা-মায়ের বেশ বকাঝকার মুখে তাকে পড়তে হয়েছে বলেও অভিযোগ। এই অপমানেই শনিবার সকাল ৮টা নাগাদ নিজের জেঠুর বাড়িতেই গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী হয় ষষ্ঠ শ্রেণির ওই ছাত্রী।

খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে যায় রিজেন্ট পার্ক থানার পুলিশ। যদিও তার আগেই ছাত্রীর দেহ উদ্ধার করে বাড়ির লোকেরা নিয়ে যায় এম আর বাঙ্গুর হাসপাতালে। সেখানে তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসকরা। মৃতার ঘর থেকে সুইসাইড নোট উদ্ধার করে তদন্ত শুরু করেছে রিজেন্ট পার্ক থানার পুলিশ। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় তার বাড়ির লোকজনদের ও বন্ধুদেরকেও। এই ঘটনায় স্তম্ভিত ওই ছাত্রীর পরিবার। বাঁশদ্রোণী এলাকায় নেমেছে শোকের ছায়া।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here