kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: শনিবার অযোধ্যা মামলার রায় ঘোষণা করেছে দেশের শীর্ষ আদালত। যেখানে বিতর্কিত জমির ২.৭৭ একর তুলে দেওয়া হয়েছে রামলালাকে। পাশাপাশি ৫ একর জমিতে মসজিদ গঠন করারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডকে। প্রাথমিক পর্যায়ে এই রায় নিয়ে খুশি হয়নি তারা। ‘অযোধ্যার লড়াই চলবে’, এমনটাই বলে নিজেদের দাবিতে অনড় ছিল সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড। কিন্তু শেষপর্যন্ত এক কদম পিছিয়ে এল এই সংগঠন। তারা জানিয়ে দিল, রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন আর করা হবে না।

সাংবাদিক বৈঠকে উত্তরপ্রদেশ সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডের চেয়ারম্যান জাফর ফারুকি জানিয়েছেন, ‘অযোধ্যা মামলায় সুপ্রিম কোর্ট যে রায় দিয়েছে তা আমরা মাথা পেতে নিচ্ছি এবং সম্মান জানাচ্ছি। আমি স্পষ্টত জানাচ্ছি, এই রায়ের বিরুদ্ধে কোনওরকম রিভিউ আর করবে না উত্তরপ্রদেশ সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড।’ অর্থাৎ, প্রথমে যে জটিল পরিস্থিতির আশঙ্কা করা হচ্ছিল, তার থেকে আপাতত বড়রকমের স্বস্তি পাওয়া গিয়েছে।

শনিবার সকালে রায় ঘোষণার ঠিক ৩০ মিনিটের মধ্যেই নিজের প্রতিক্রিয়া পেশ করেন জাফর ইয়াব জিলানি। তিনি বলেন, ‘রায়ের কোনও কোনও অংশ খুবই সন্তোষজনক। যেমন শরিয়ত আইন অনুযায়ী, মন্দির কখনও উপহার হিসাবে দেওয়া যায় না বা কারও থেকে উপহার হিসাবে নেওয়া যায় না।’ তাঁর কথায়, আদালত তার রায়ে ওই বিতর্কিত জমিতে আমাদের কোনও অধিকার দেয়নি। সর্বোচ্চ আদালতে রিভিউ পিটিশন দাখিল করার সুযোগ রয়েছে। সেই মন্তব্যের প্রেক্ষিতে রায় নিয়ে ফের জটিলতার সৃষ্টি হয়েছিল। কিন্তু সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডের চেয়ারম্যানের ঘোষণার পর সব সমস্যার সমাধান হয়ে গেল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here