kolkata bengali news

ডেস্ক: দেশজুড়ে গোরক্ষার নামে চলা হিংসাকে নিয়ে এদিন শুনানি ছিল দেশের শীর্ষ আদালতে। ফয়সালা শোনাতে গিয়ে আদালত জানায় এর জন্য সাংসদে একটি আইন বানানোর প্রয়োজন রয়েছে। একই সঙ্গে হিংসা দমন করার জন্য প্রয়োজনীয় নির্দেশাবলী আগামী ৪ সপ্তাহের মধ্যে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারগুলিকে জারি করতে বলা হয়েছে। আদালত এদিন বলে, গোরক্ষার নামে আইন নিজের হাতে তুলে নেওয়ার ক্ষমতা কারও নেই। একই সঙ্গে এদিন সাফ করে দেওয়া হয়েছে গোরক্ষার নামে যদি প্রাণহানীর ঘটনা ঘটে তবে এর জন্য রাজ্য সরকার সহ প্রশাসন দায়ী থাকবে।

এই মামলার শেষ শুনানির দিনই সুপ্রিম কোর্টের তরফ থেকে বলে হয়েছিল, গোরক্ষার নামে হিংসার মামলাগুলিকে আটকানো রাজ্যের দ্বায়িত্বের মধ্যেই পড়ে। এদিন সুপ্রিম কোর্টের তরফে আবারও বলা হয়েছে, প্রত্যেক জেলায় একজন আধিকারিক নিয়োগ করতে যিনি গোরক্ষা জনিত মামলাগুলির দেখভাল করবেন। আদালত বলে, এটি কেবল আইন সংক্রান্ত সমস্যা নয়। বরং একপ্রকার মারাত্মক অপরাধ। একই সঙ্গে হিংসায় দোষী প্রমাণিত হলে কঠোর সাজা দেওয়ার কথাও জানিয়ে দেন শীর্ষ আদালতের বিচারপতিরা।

মামলার আবেদনকারী ইন্দিরা জয়সিং আদালতে বলেন, গোরক্ষার নামে হত্যা করা অপরাধীদের জন্য যেন গর্বের বিষয় হয়ে গিয়েছে। সেই কারণে আদালতের নির্দেশনামাকে প্রতিটি রাজ্যে শক্ত হাতে পালন করার আবেদন করেন তিনি।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here