kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: সোশ্যাল মিডিয়া। এই একটি নামই যেন চালাচ্ছে গোটা দেশকে। ছোট থেকে বড়, সবরকম ঘটনার প্রেক্ষিতে স্বাধীনভাবে মত প্রকাশের এই মাধ্যমকে ব্যবহার করে প্রত্যেকে নিজের মন্তব্যকে ভাসিয়ে দিতে বেশ পছন্দ করে থাকেন। কিন্তু ইদানীং এই স্বাধীন মতপ্রকাশের অপব্যবহার সমানুপাতিকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। যা একাধিক হিংসা ও উদ্বেগমূলক ঘটনার জন্ম দিচ্ছে। এই প্রবণতা রুখতে এবার কেন্দ্র সরকারকে জরুরি নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

মঙ্গলবার দেশের শীর্ষ আদালত কেন্দ্রকে জানায়, সোশ্যাল মিডিয়ার অপব্যবহার দিনের পর দিন যেভাবে বেড়ে চলছে তা ক্রমশ মাত্রাছাড়া আকার ধারণ নিচ্ছে। এখানেই সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষক, কোথাও গিয়ে এই বাড়াবাড়ি রুখতে নির্দিষ্ট একটা গাইডলাইন থাকা প্রয়োজন। যা এই মুহূর্তে নেই। এই বিষয় নিয়ে কী করা যায় এবং কীভাবে একে আটকানো যায় তা ঠিক করতে কেন্দ্রকে নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। এদিন বিচারপতি দীপক গুপ্ত এবং অনিরুদ্ধ বোসের ডিভিশন বেঞ্চে একটি মামলা উঠলে এই নির্দেশ দেওয়া হয় শীর্ষ আদালতের তরফে।

সুপ্রিম কোর্ট কেন্দ্রকে জানিয়েছে, আগামী তিন সপ্তাহের মধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ার অপব্যবহার রুখতে নতুন নির্দেশনামা তৈরি করতে হবে কেন্দ্রীয় সরকার। একটি নির্দিষ্ট গাইডলাইন বানাতে হবে যার অন্দরে সোশ্যাল মিডিয়ার কার্যকলাপ হবে। বিশেষত নানা খবর বা ভাইরাল হওয়া ভিডিয়ো অনেক সময় জনগণের অন্দরে চাঞ্চল্য সৃষ্টি করে। কিন্তু সেই ভিডিয়ো বা খবরের উৎস কী তা জানা যায় না। এই বিষয়টি ভাবাচ্ছে সুপ্রিম কোর্টকে। এ ক্ষেত্রে বাঁধ লাগানোর সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতা শীর্ষ আদালতের হাতে থাকে না। সেই কারণেই এই দায়িত্ব কেন্দ্রীয় সরকারের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here