মহানগর ডেস্ক: একসময়ের ভারতীয় চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় মুখ রিমি সেন। তবে সম্প্রতি পর্দায় তাকে দেখা যায় না বললেই চলে। বলিউড থেকে প্রায় হারিয়ে যেতে বসেছেন কলকাতার মেয়ে রিমি সেন। হারিয়ে যাওয়া কেরিয়ার আবার শুরু করতে চান। তবে নতুন ভাবে। অভিনয়ের পাশাপাশি রাজনীতিকেও কেরিয়ার হিসেবে নিতে চান তিনি।

২০২১ বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী তালিকা যেন চাঁদের হাট। তৃণমূল থেকে বিজেপি- সব দলের প্রার্থী তালিকায় রয়েছেন টলিউডের অভিনেতা-অভিনেত্রীর। ঠিক এই অবস্থায় এই বাঙালি অভিনেত্রী রাজনীতিতে যোগদানের ইচ্ছা প্রকাশ করলেন। যদিও তিনি টলিউডের নন, বলিউডের অভিনেত্রী। তিনি জানিয়েছেন, ‘আমার পরিবারের সদস্যরা বলেন, রাজনীতিতে আমি ভাল কাজ করব। সুতরাং রাজনীতিতে আসব আমি। আর কয়েক বছরের মধ্যেই যোগ দেব সক্রিয় রাজনীতিতে। রাজনীতির কেরিয়ার খুব চ্যালেঞ্জিং। এখানে মানুষই সব। তাই নিজেকে আর একটু তৈরি করে নিতে হবে।’ রিমি জানিয়েছেন, আগামী চার-পাঁচ বছরের মধ্যেই যোগ দেবেন রাজনীতিতে। তবে সেটা বঙ্গ রাজনীতিতে নাকি অন্য কোথাও- সেই বিষয়টা স্পষ্ট করেননি তিনি।

তেলেগু ছবি দিয়ে নিজের অভিনয় জীবন শুরু করেছিলেন। ২০০৩ সালে ‘হাঙ্গামা’ ছবিতে অভিনয়ের মাধ্যমে বলিউডে ডেবিউ হয় তার। এরপর ‘হেরা ফেরি’, ‘গরম মশলা’, ‘গোলমাল ফান আনলিমিটেড’-এর মতো ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। সব মিলিয়ে প্রায় কুড়িটি ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি, যার বেশিরভাগ হিন্দি। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে রিমি জানিয়েছিলেন, ‘স্বদেশ’, ‘মুন্নাভাই এমবিবিএস’-এর মতো ছবিতে সুযোগ পেয়েও অজানা কারণে বাদ পড়েছিলেন তিনি। তবে বর্তমানে ওটিটি প্ল্যাটফর্মে কাজ শুরু করে ফিরে আসতে চান পর্দায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here