Parul

মহানগর ডেস্ক: আগের বিজেপির সঙ্গে বর্তমানে বিজেপির কোনও মিল নেই, এমন সুরেই বিজেপিকে কটাক্ষ করলেন দলের নেতা জয় ব্যানার্জি। তিনি জানিয়েছেন, ‘যখন ২০১৪ সালে জয় ব্যানার্জি বিজেপিতে প্রবেশ করেছিলেন তখন বিজেপির যে নীতি ছিল, সেই নীতির সঙ্গে বর্তমান বিজেপির নীতির কোন মিল নেই। আগে বিজেপি ছিল আদর্শবান। জনগণের প্রতি দায়বদ্ধ। প্রত্যেক নেতাকর্মীদের মধ্যে ছিল আন্তরিক ভালোবাসা। ছিল সহবত, ছিলনা কোন বিদ্বেষ’।

ads

‘আগে বিজেপিতে ছিল আন্তরিকতা। তখন এত নেতাকর্মীও ছিলনা বিজেপিতে। কিন্তু বর্তমান বিজেপিতে নেই আন্তরিকতা। প্রত্যেক নেতাকর্মীরা নিজেদের স্বার্থ ছাড়া কিছুই বোঝেন না। আর এখন বিজেপিতে এত নেতাকর্মী যে নিজেরাই নিজেদের মধ্যে করছে গন্ডগোল। আর যে বিজেপির জন্য একটা সময় পর্বত থেকে সমতল পর্যন্ত প্রচার করা হয়েছিল, সেই বিজেপিতে এখন কাদা ছোড়াছুড়ি হয়। বিজেপি নেতাকর্মীরাই একে অন্যের নামে বিদ্বেষ তৈরি করে’।

২০২১ সালের বিজেপির যে রূপ সামনে এসেছে তাতে আগের মতন নেই সেই আদর্শ। ‘এই ভাবে যদি বিজেপি চলতে থাকে তাহলে খুব শীঘ্রই পঞ্চায়েত ও পৌরসভা নির্বাচনে মমতা ব্যানার্জি অভিষেক ব্যানার্জির কাছে ডজন ডজন গোল খেতে হবে। মুখ্যমন্ত্রী ও অভিষেক ব্যানার্জী যেভাবে তৃণমূল কংগ্রেসকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে তাতে নিশ্চিত যে আগামী পৌরসভা নির্বাচনে বিজেপি গো হারান হারবে’।

এছাড়াও জয় ব্যানার্জি জ্বালানির অতিরিক্ত দাম বেড়ে যাওয়া নিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে কটাক্ষ করেন। এমনকি এই অতিরিক্ত জ্বালানির দাম বেড়ে যাওয়া নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে অনুরোধ করে জয় ব্যানার্জি জানিয়েছেন যে, ‘সারা বাংলার মানুষ আপনার দিকে তাকিয়ে রয়েছে তাই কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে বৈঠকে বসে এই জ্বালানির দাম কম করতে হবে, যাতে করে মধ্যবিত্তরা প্রাণে বাঁচে’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here