রাস্তা খারাপ, গাড়ি ঢুকবে না বরযাত্রীর! নালিশ পেতেই ঝটপট অ্যাকশন মেয়রের

0
kolkata bengali news

নিজস্ব প্রতিনিধি,কলকাতা: কর্পোরেশনের আওতায় থাকা যেকোনও পুরসমস্যা সমাধান করাই কলকাতা কর্পোরেশনের মেয়র তথা পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের কাজ। কিন্তু মানুষের ছোট ছোট সমস্যাকে মাথায় রেখে পাশে দাঁড়াতে বোধহয় কমই দেখা গেছে কোনও মেয়রকে৷

১২৩ নম্বর ওয়ার্ড থেকে মেয়রের কাছে ফোন করেন গৌতম মজুমদার। তিনি জানান, দীর্ঘদিন ধরেই তাঁর বাড়ির সামনের রাস্তার অবস্থা খুবই খারাপ। মেরামত হলেও তা হচ্ছে খুবই ধির গতিতে। কিন্তু চলতি মাসের ১১ তারিখে তার মেয়ের বিয়ে। সেক্ষেত্রে রাস্তা খারাপ থাকলে বরযাত্রীর গাড়ি ঢুকতে পারবে না। এই কথা জানানোর পরেই মেয়র নির্দেশ দেন যাতে দ্রুত ওই রাস্তাটি ১১ ডিসেম্বরের আগেই সারিয়ে দেওয়া হয়।
অন্যদিকে মেয়রের এই আশ্বাস শুনেই বেজায় খুশি হয়ে যায় মেয়ের বাবা।

এছাড়াও আর একটি অভিযোগ আসে মেয়রের কাছে, ৮ নম্বর ক্যামাক স্ট্রিট থেকে ফোন করেন একজন। তার অভিযোগ তাঁর বাড়ির সামনের ফুটপাথে দোকান সাজিয়ে বসেছে এক হকার। বারবার তাকে উঠতে বলেও কোনও কাজ হয়নি। উল্টে হকারের দাবি, শহরের সমস্ত ফুটপাথেই তো হকারদের দোকান আছে তাই সে উঠবে না। একথা জানাতেই মেয়র নির্দেশ দেন, দ্রুত ওই দোকান ফুটপাথ থেকে তুলে দিতে হবে। তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন, আগের থেকে যারা ছিল ছিল, কিন্তু নতুন করে কাউকে আর বসতে দেওয়া যাবে না।

যোদপুর পার্ক থেকে ফোন করেন সুব্রত ঘোষ। তিনি জানান, তার বাড়ির সামনের রাস্তায় পুরসভার থেকেই লাগানো রয়েছে কিছু বড়ো বড়ো গাছ। সেই গাছ গুলো দীর্ঘদিন রক্ষনাবেক্ষনের অভাবে থেকে অতিরিক্ত বড় হয়ে গেছে। যা তার বাড়িতে ঢুকে আসছে। এই কথা জানাতেই দ্রুত গাছের অতিরিক্ত ডাল কেটে দেওয়ার নির্দেশ দেন মেয়র। যদিও গাছটির যাতে কোনও ক্ষতি না হয় সে বিষয়েও নজর রাখতে বলেন তিনি। অন্যদিকে মেয়রের এই ধরনের বক্তব্য মন জয় করে নেয় শহরবাসীর। সেই কথাও আম জনতা ফোনের মাধ্যমেই জানান মেয়রকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here