Parul

মহানগর ডেস্ক: যুগ যুগ ধরে চলে আসছে, সন্তানের ছায়া হিসেবে সব সময় মা ঘুরে বেড়ায়। আর সেই সন্তানকে রক্ষার জন্য একজন মা সব রকম ঝুঁকি নিতে প্রস্তুত থাকে। নিজের প্রাণের বাজি রেখেও নিজের সন্তানকে বাচাঁনোর আপ্রাণ চেষ্টা করেন মা। কিন্তু অনেক সময় এমন ঘটনা হতে থাকে যে পারিপার্শ্বিক পরিস্থিতি এমন তৈরি হয় যে ভয়াবহতা ও আকস্মিকতায় মারাত্মক সিদ্ধান্ত নিতে হয় মাকে। ঠিক এমনই একটি ঘটনা ঘটেছে দক্ষিণ আফ্রিকার ডারবানে।

ads

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। যেখানে দেখা গিয়েছে একটি বহুতলে আগুন লেগেছে। কালো ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছে গোটা বহুতলের একাংশ। আর সেই বহুতলের একটি ফ্লোরে একদম ধারে দু বছরের কন্যা সন্তানকে কোলে নিয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছেন মা।

https://twitter.com/hashtag/ShutdownKZN?src=hash&ref_src=twsrc%5Etfw%22%3E#ShutdownKZN%3C/a%3E

আবার ভিডিওটিতে কিছুক্ষণ পর দেখা গিয়েছে যে, নিজের সন্তানকে ছুঁড়ে ফেলে দিয়েছেন ওই মহিলা। নিচে থাকা দমকল বিভাগের কর্মী এবং স্থানীয় কয়েকজন অবশ্য বাচ্চাটিকে লুফে নিয়েছেন। যার ফলে কোনও বিপদ হয়নি। তাই মাঝে মাঝে আকস্মিকতায় নেওয়ার সিদ্ধান্ত সফল হয় হয়তো। একটু অসাবধানতা হলেই ভয়ঙ্কর দুর্ঘটনা ঘটে যেত। হারিয়ে ফেলতেন তার সন্তানকে। কিন্তু কপাল জুড়ে বেজে গিয়েছে সেই ছোট্ট কন্যা সন্তানটি।

এই ভিডিওটি প্রকাশ হতেই অনেকেই মহিলার আচরণের প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। কিন্তু একবার ভেবে দেখা উচিত ঠিক ওই মুহূর্তে পরিস্থিতিতে এটা ছাড়া হয়তো ওই মহিলার কাছে আর কোনও উপায় ছিল না। আবার অনেকে সেই মায়ের তার সন্তানকে বাচাঁনোর চেষ্টাটুকু নিয়ে বাহবা দিয়েছেন। টুইটারে এই ভিডিওটি এক সাংবাদিক পোস্ট করেছেন। বহুতলের ১৬ তলায় লেগেছিল আগুন। সেখানেই মেয়েকে নিয়ে দাঁড়িয়ে ছিলেন ওই মহিলা। কোন মতে সিড়ি বেয়ে ছুটে পালিয়ে কয়েকটা ফ্লোর নেমে আসতে পেরেছিলেন তিনি।

বর্তমানে মা ও মেয়ে দুজনেই সুস্থ রয়েছেন। এক সংবাদ সংস্থাকে ওই মহিলা জানিয়েছেন, মেয়েকে নিচে ছুড়ে দেওয়ার পর ক্ষণিকের জন্য তার মাথার কোন ভাবেই কাজ করছিল না। তার মেয়ের চিৎকার করে তার মাকে বলেছিল যে, আমায় নিচে ছুড়ে ফেলে দাও। আসলে সে খুব ভয় পেয়ে গিয়েছিল। ওখান থেকে আমার মেয়েকে বের করাই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ছিল। ওই ভয়াবহ পরিস্থিতিতে কোনও ভাবেই সম্ভব ছিলনা ছোট্ট সন্তানটিকে ফেলে আসা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here