Home Featured হাইকোর্টে মুখ থুবড়ে পড়ল রাজ্য, আদালতের নির্দেশ ছাড়া উচ্চ প্রাথমিকে দেওয়া যাবে না নিয়োগপত্র

হাইকোর্টে মুখ থুবড়ে পড়ল রাজ্য, আদালতের নির্দেশ ছাড়া উচ্চ প্রাথমিকে দেওয়া যাবে না নিয়োগপত্র

0
হাইকোর্টে মুখ থুবড়ে পড়ল রাজ্য, আদালতের নির্দেশ ছাড়া উচ্চ প্রাথমিকে দেওয়া যাবে না নিয়োগপত্র
Parul

মহানগর ডেস্ক: উচ্চ প্রাথমিক নিয়ে বারবারই কলকাতা হাইকোর্টের মুখ থুবড়ে পড়ছে রাজ্য। ইন্টারভিউ প্রক্রিয়ায় কোনও বাধা না দিলেও, কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ এ নির্দেশ ছাড়া আগামী ৩ মাস নিয়োগপত্র দেওয়া যাবে না বলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। সিঙ্গল বেঞ্চের নিয়োগে স্থগিতাদেশ প্রত্যাহারে রায়কে চ্যালেঞ্জ করে পাল্টা মামলা দায়ের করা হয়েছিল উচ্চতর বেঞ্চে।

মঙ্গলবার নতুন করে উচ্চ প্রাথমিকে নিয়োগ নিয়োগে স্থগিতাদেশ না দিলেও এসএসসিকে হাইকোর্টের নির্দেশ দিয়েছে আদালতের অনুমতি ছাড়া কোনভাবেই নিয়োগপত্র দেওয়া যাবেনা চাকরির প্রার্থীকে। এমনটাই জানিয়েছেন বিচারপতির সুব্রত তালুকদার ও বিচারপতি সৌরভ ভট্টাচার্য্য।

হাইকোর্টের পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়েছে যে, আদালতের নির্দেশ ছাড়া কোনভাবেই নিয়োগপত্র দেওয়া যাবে না। তবে ইন্টারভিউ প্রক্রিয়া চালিয়ে যেতে কোন অসুবিধা নেই স্বচ্ছ ভাবে চালাতে হবে শিক্ষাগত যোগ্যতা মেপে ও ইন্টারভিউতে প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে তৈরি হবে তথ্যভান্ডার। একইভাবে যারা অনিয়মের অভিযোগে কমিশনের কাছে অভিযোগ করেছে এবং যাদের শুনানি কমিশনের কাছে হবে, তাদের তথ্য ভান্ডারও তৈরি করতে হবে। এই দুই তথ্যভান্ডার আদালতে জমা দেওয়ার পর তৈরি হবে মেধা তালিকা।

আদালতের উচ্চ প্রাথমিকে নিয়োগ নিয়ে সওয়াল জবাব চলাকালীন বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্য জানিয়েছেন, চাকরিপ্রার্থীদের যোগ্যতার বিচার না করেই মেধা তালিকা প্রকাশ করেছে এসএসসি। সুবীর সান্যাল জানিয়েছেন, শিক্ষাগত যোগ্যতা অনুযায়ী মেধা তালিকার অন্তর্ভুক্ত করা হয়নি। উচ্চ প্রাথমিকে নিয়োগের ক্ষেত্রে সিঙ্গেল বেঞ্চে স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার করে জানিয়েছিল ইন্টারভিউ ও প্যানেলে দুই ক্ষেত্রে কোনও বাধা থাকবে না সেই স্বস্তির পরেও অস্বস্তির বাড়লো আবার রাজ্যে। প্যানেল বা ইন্টারভিউতে বাধা না থাকলেও আগামী ৩ মাস কোন ভাবেই আদালতের নির্দেশ ছাড়া নিয়োগপত্র দিতে পারবেনা রাজ্য।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here