bengali news

 

মহানগর ডেস্ক: নির্বাচন কমিশনে তৃণমূল কংগ্রেস অভিযোগ করেছে, হাওড়া দক্ষিণের বিজেপি প্রার্থী রন্তিদেব সেনগুপ্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন৷ প্রবীণ সাংবাদিক তথা বিজেপি প্রার্থী রন্তিদেব অবশ্য তৃণমূলের অভিযোগকে ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দিয়ে পালটা দাবি করেছেন, তাঁর করোনা হয়নি৷ তিন জায়গায় তিনি নমুনা পরীক্ষা করিয়েছেন এবং নেগেটিভ রিপোর্ট এসেছে৷ ওই কেন্দ্রেরই তৃণমূল প্রার্থী নন্দিতা চৌধুরী নির্বাচন কমিশনকে লেখা অভিযোগে জানিয়েছেন, ক্যালকাটা স্কুল অব ট্রপিক্যাল মেডিসিন-এ রন্তিদেবের স্যাম্পল টেস্ট হয়েছে এবং তাঁর রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে৷ অথচ তারপরেও তিনি রীতিমতো সভা-সমিতিতে বক্তব্য রাখছেন এবং হাওড়া দক্ষিণ বিধানসভা এলাকার অন্তর্গত বিভিন্ন এলাকায় প্রতিদিন বাড়ি বাড়ি গিয়ে জনসংযোগ করছেন তিনি৷

এতে করে নিঃশব্দে সাধারণ মানুষের মধ্যে অতিমারী করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঘটাচ্ছেন বিজেপি প্রার্থী রন্তিদেব৷ রিটার্নিং অফিসারকে এই অভিযোগ জানিয়ে চিঠি লিখেছেন তৃণমূল প্রার্থীর নন্দিতার নির্বাচনী এজেন্ট দেবাশিস বন্দ্যাপাধ্যায়৷ তাতে তিনি লিখেছেন, ৬ এপ্রিল রন্তিদেবের কোভিড টেস্টের রিপোর্ট এসেছে পজিটিভ৷ ক্যালকাটা স্কুল অব ট্রপিক্যাল মেডিসিনের ওই রিপোর্টের জেরক্স কপিও জমা দিয়েছেন তিনি৷ অবশ্য ওই রিপোর্টের সত্য-মিথ্যা যাচাই করেনি মহানগর৷ এদিকে করোনাক্রান্ত বলে অভিযোগ জানিয়ে হাওড়া দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থীর বিরুদ্ধে জরুরি ভিত্তিতে পদক্ষেপ করতে আর্জি জানানো হয়েছে তৃণমূলের তরফে৷

অন্যদিকে রন্তিদেব তৃণমূলের এই অভিযোগকে পুরোপুরি মিথ্যা ও ধাপ্পা বলে নাকচ করে দিয়েছেন৷ ট্রপিক্যালের একটা রিপোর্টের জেরক্স কপি জমা দিয়ে কমিশনকে তিনি পালটা বলেছেন, তাঁর করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে৷ তিনি এও বলেন, ক্যালকাটা স্কুল অব ট্রপিক্যাল মেডিসিনের রিপোর্টকেও যদি তৃণমূল শিবির বিশ্বাস না করতে পারে, তাহলে তারা এসে আমার লালারসের নমুনা নিয়ে গিয়ে পরীক্ষা করান৷ এতে আমার কোনও আপত্তি নেই৷ উল্লেখ্য, ২০১৯ লোকসভা ভোটে হাওড়া কেন্দ্রে দাঁড়িয়েছিলেন রন্তিদেব৷ 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here