ভোট পরবর্তী হিংসায় ডোমকলে আক্রান্ত ঘাসফুল! লোহার রড, বল্লম দিয়ে মার তৃণমূলকর্মীদের

0
kolkata bengali news

নিজস্ব প্রতিবেদক, ডোমকল: জেলার ৩টি আসনের মধ্যে একটিতেও জয়ী হয়নি গেরুয়া শিবির। কিন্তু রাজ্যে আর দেশ জুড়ে ভাল ফল করেছে তারা। আর তার জেরেই জেলায় রাতারাতি দাপট বেড়েছে গেরুয়া শিবিরের কর্মীসমর্থকদের। যার একটা লক্ষণ ধরা পড়ে গেল বৃহস্পতিবার রাতেই। ভোট পরবর্তী হিংসায় মুর্শিদাবাদ জেলার ডোমকল পুরসভা এলাকায় আক্রান্ত হলেন ৩ তৃণমূল কর্মী। তাও আবার গেরুয়া ব্রিগেডের হাতেই।

বৃহস্পতিবার লোকসভা নির্বাচনের ফল বেরোনোর পরই জেলা তথা রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় বিজেপি কর্মীদের আস্ফালন রীতিমত চোখে পড়ছে। ডোমকল পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান তথা আট নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রদীপ চাকির অভিযোগ ওই ওয়ার্ড সহ ডোমকল থেকে তৃণমূল কংগ্রেস লিড পেয়েছে, কিন্তু দেশে বিজেপি সরকার আসায় এবং রাজ্যে বিজেপির আসন সংখ্যা বৃদ্ধির ফলে বিজেপি অশান্তির বাতাবরণ সৃষ্টি করছে। এর ফল স্বরূপ ভোট পরবর্তী হিংসায় বিজেপিকর্মীদের হাতে আক্রান্ত হতে হচ্ছে তৃণমূল কর্মীদের। যার নিদর্শন ধরা পড়েছে তার নিজের এলাকাতেই। সেখানে বিজেপির হামলায় আহত হয়েছেন সংশ্লীষ্ট ওয়ার্ডের তৃণমূল কংগ্রেসের ওয়ার্ড সভাপতি সহ মোট তিনজন।

জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে ডোমকলের বাজিতপুর এলাকার ভোটের ফল প্রকাশের পর গভীর রাতে বিজেপি কর্মীরা বিজয় উল্লাসে মেতে ওঠেন। পটকা বোমা ফাটানোর পাশাপাশি তারা সুতলি, কৌটো বোমাও ফাটান বলে অভিযোগ।

গভীর রাতে বোমা ফাটানোর প্রতিবাদ করেন আট নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কংগ্রেসের ওয়ার্ড সভাপতি রবিশঙ্কর পাল। অভিযোগ দরজা খুলতেই সশস্ত্র বিজেপি কর্মীরা তার উপর লোহার রড, বল্লম নিয়ে মারধর করে। তাকে বাঁচাতে গিয়ে তার ভাই সহ আরও এক তৃণমূল কংগ্রেস কর্মী আক্রান্ত হয়। রবিশঙ্কর পালের মাথায়, হাতে, পিঠে চোট লাগে। খবর পেয়েই রাতে ঘটনাস্থলে পৌছায় ডোমকল থানার পুলিশ।

আক্রান্ত তৃণমূল কংগ্রেসের ওয়ার্ড সভাপতি রবিশঙ্কর পাল দশজন বিজেপি কর্মীর নামে ডোমকল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। ডোমকল বিজেপি টাউন সভাপতি অরুপ বাগচি অবশ্য ঘটনার কথা অস্বীকার করে বলেন এটা তৃণমূলের অন্তর্দ্বন্দের ফল। ঘটনার জেরে তিনজন বিজেপি কর্মীকে আটক করেছে ডোমকল থানার পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here