ডেস্ক: দলের অন্দরেই কোন্দল, এক তৃণমূল নেতার হাতেই খুন হতে হয়েছিল আরেক তৃণমূল নেতাকে। ঘটনাটি ঘটে বর্ধমান জেলায়। প্রায় ৯ মাস আগে মঙ্গলকোটে খুন হন তৃণমূলের ব্লক সভাপতি ডালিম সেখ। ওই ঘটনায় মূল অভিযুক্ত বর্ধমান জেলা পরিষদের তৃণমূল সদস্য বিকাশ নারায়ণ চৌধুরী এতদিন অধরা ছিলেন। অবশেষে গত বছরের জুন মাসে ঘটে যাওয়া এই ঘটনায় রবিবার বর্ধমানের উল্লাস মোড় থেকে সিআইডির হাতে গ্রেফতার হন তিনি।

তৃণমূলের ব্লক সভাপতি ডালিম সেখ খুনের ঘটনায় জড়িত ব্যক্তিদের মধ্যে বেশিরভাগদের হেফাজতে নিয়ে ফেলেছে পুলিশ। কিন্তু এখনও পর্যন্ত অধরা ছিলেন মূল অভিযুক্ত। খুনে ঘটনার পরই এতে বিকাশ নারায়ণ চৌধুরী ও মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লা চৌধুরীর ভাই রহমতউল্লা চৌধুরীর জড়িত থাকার কথা জানান ডালিম শেখের স্ত্রী। তারপর থেকেই বিকাশকে খুঁজে যাচ্ছিল পুলিশ। অবশেষে সিআইডির হাতে ধরা পড়লেন তিনি।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বিকাশের মোবাইল ফোন ট্র্যাক কর তার লোকেশনের উপর বেশ কিছুদিন ধরেই নজর রাখা হচ্ছিল। তাঁকে গ্রেফতার করার জন্য তক্কে তক্কে ছিল পুলিশও। সিআইডিও আলাদা ভাবে তাঁর গতিবিধির উপর নজর রাখছিল। অবশেষে রবিবার তাঁকে গ্রেফতার করা হয়।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here