Hollywood news
Highlights

  • প্রখ্যাত অভিনেতা টম হ্যাঙ্কসের শরীরে মিলল নোভেল করোনা ভাইরাস
  • এই ভাইরাস মিলেছে তাঁর স্ত্রী রিটার শরীরেও
  • এলভিস প্রেসলির বায়োপিকের প্রি-প্রোডাকশনের কাজের জন্যই অস্ট্রেলিয়া গিয়েছিলেন হ্যাঙ্কস

মহানগর ওয়েবডেস্ক: মারণ করোনা ভাইরাসের থাবা এবার হলিউডেও। প্রখ্যাত অভিনেতা টম হ্যাঙ্কসের শরীরেও মিলল নোভেল করোনা ভাইরাস। সেই সঙ্গে এই ভাইরাস মিলেছে তাঁর স্ত্রী রিটার শরীরেও। সম্প্রতি নিজেই সোশ্যাল মিডিয়ায় এই খবর জানিয়েছেন দু’বারের অস্কারজয়ী এই অভিনেতা।

সম্প্রতি বলিউডে ‘লাল সিং চাড্ডা’ নামক একটি সিনেমার শুটিং করছেন আমির খান। কয়েকদিন আগে কলকাতাতেও সেই ছবির শুটিং সেরে গিয়েছেন। আমিরের এই মুভি ইংরাজি ছবি ‘ফরেস্ট গাম্প’ থেকে অনুপ্রাণিত। আর এই ‘ফরেস্ট গাম্প’ ছবির নায়ক ছিলেন টম হ্যাঙ্কস।

বুধবার নিজের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে টম জানান যে, তিনি ও তাঁর স্ত্রী রিটা অস্ট্রেলিয়ায় যাওয়ার পরেই জ্বরে আক্রান্ত হন। সেই সঙ্গে গায়েও ব্যথা যা COVID-19 এর লক্ষ্মণ। সঙ্গে সঙ্গেই তারা নিজেদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করান, যাতে তাঁদের দেহে করোনার উপস্থিতির প্রমাণ মেলে। ফলে তাঁদের আলাদা ভাবে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে।

আসলে ওয়ার্নার ব্রাদার্সের প্রযোজনায় বাজ লুরমান পরিচালিত এলভিস প্রেসলির বায়োপিকের প্রি-প্রোডাকশনের কাজের জন্যই অস্ট্রেলিয়া গিয়েছিলেন হ্যাঙ্কস। ছবিতে প্রেসলির ম্যানেজার টম পার্কারের চরিত্রে অভিনয় করছেন টম। কিন্তু তাঁর শরীরে করোনা মেলায় ছবির শিডিউল পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে। ওয়ার্নার ব্রাদার্সের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, শুধু টম হ্যাঙ্কস বা তাঁর স্ত্রীই নয়, শুটিং দলের আরও বেশ কিছু সদস্য এই ভাইরাসে আক্রান্ত।

উল্লেখ্য শুধুমাত্র অস্ট্রেলিয়াতেই এখনও পর্যন্ত ১২০ জন নোভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। এর মধ্যে তিন জনের মৃত্যু হয়েছে। সম্প্রতি ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন এই করোনা ভাইরাসকে বিশ্বজনীন মহামারীর আখ্যা দিয়েছে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here