kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি: বরানগরের বিজেপি প্রার্থী পার্নো মিত্রকে ঘিরে বিক্ষোভ তৃণমূলের। আলমবাজার এলাকায় তাকে ঘিরে ‘গো ব্যাক’ স্লোগান দেওয়া হয়। প্রচুর তৃণমূল কর্মী-সমর্থক তাকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখালে এলাকার পরিবেশ উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। সেই সময় পুলিশ ও কেন্দ্রীয় বাহিনী লাঠি উঁচিয়ে তেড়ে গিয়ে বিক্ষোভরত তৃণমূল কর্মী-সমর্থকদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এই ঘটনায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে আলম বাজারে। তৃণমূলের অভিযোগ, বহিরাগত গুন্ডাদের নিয়ে এলাকার বুথে বুথে ঘুরছেন বিজেপি প্রার্থী পার্নো মিত্র।

​এখানে প্রচারের শেষ দিন পার্নো মিত্রের মিছিলে ধুন্ধুমার কাণ্ড ঘটে। তার মিছিলে তৃণমূল হামলা চালায় বলে অভিযোগ ওঠে। এই নিয়ে ব্যাপক ঝামেলা শুরু হয় বিটি রোডে। প্রতিবাদে বিজেপি কর্মী-সমর্থক বিটি রোড অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন। পাল্টা তৃণমূল সেখানে জমায়েত করে বিক্ষোভ দেখায়। এই ঘটনায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পার্নো মিত্র অভিযোগ করে বলেছিলেন, দুই তারিখের পর বলি দেওয়া হবে বলে হুমকি দিচ্ছে তৃণমূলের লোকজন। ভোটের দিন এখানে ঝামেলার আশঙ্কা ছিল। তবে দেখা যায়, এদিন সকাল থেকে ভোট মোটামুটি শান্তিতেই হচ্ছিল এই আসনে। দুপুরের দিকে আলমবাজারে বাধে গণ্ডগোল।

​বিজেপি প্রার্থী পার্নো মিত্রের অভিযোগ, তিনি যখন বুথে বুথে ঘুরছিলেন, সেইসময় আলমবাজারে তাকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখান বেশকিছু তৃণমূল কর্মী-সমর্থক। তারা অশ্রাব্য গালিগালাজের পাশাপাশি গো ব্যাক স্লোগান দিতে থাকেন। যদিও তৃণমূলের তরফে অভিযোগ করে বলা হয়েছে, অশান্তি করার জন্য পার্নো মিত্র বহিরাগত গুন্ডাদের নিয়ে ঘুরছেন। ধুন্ধুমার পরিস্থিতি তৈরি হওয়ার আগেই পুলিশ হস্তক্ষেপ করে। বিরাট বাহিনী এসে সেখানে থাকা উভয় দলের কর্মী-সমর্থকদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here