নবদ্বীপে যুবক খুনের ঘটনায় নবদ্বীপে বিজেপির ১২ ঘণ্টা বনধ, বিপর্যস্ত যান চলাচল

0
12518

নিজস্ব প্রতিবেদক, নদিয়া: নবদ্বীপে জয় শ্রীরাম ধ্বনি তোলায় কৃষ্ণ দেবনাথের মৃত্যুর প্রতিবাদে এবং দোষীদের গ্রেফতারের দাবিতে ১২ ঘন্টার নবদ্বীপ বনধের ডাক দিল বিজেপি। বেসরকারি বাস থেকে শুরু করে ফেরীঘাট নৌকা চলাচল বন্ধ। বিপর্যস্ত যান চলাচল।

নদিয়ায় জয় শ্রী রাম ধ্বনি তোলায় যুবককে পিটিয়ে মারার অভিযোগ ওঠে৷ শুধুমাত্র সে বিজেপির সমর্থক ছিল বলে ও জয় শ্রীরাম বলেছিল বলে তাকে হত্যা করা হয় বলে দাবি তোলে বিজেপি। বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে পিটিয়ে খুন করা হয় ওই যুবককে। বছর একত্রিশের ওই যুবকের নাম কৃষ্ণ দেবনাথ। ঘটনাটি ঘটেছে নদিয়া জেলার নবদ্বীপ থানার স্বরুপগঞ্জ এলাকায়।

সূত্রের খবর, স্বরুপগঞ্জ এলাকার ওই যুবক কর্মসূত্রে বাইরে থাকেন। গত বুধবার তিনি বাড়িতে আসেন। সেই রাতেই স্থানীয় কয়েকজন যুবক তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। রাতেই একটি পাশে ক্লাবের সামনে কৃষ্ণ দেবনাথের দেহ ক্ষতবিক্ষত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয়রা। তড়িঘড়ি প্রথমে তাকে শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অবস্থার অবনতি দেখে তাকে বৃহস্পতিবার কলকাতার নীলরতন হাসপাতাল স্থানান্তরিত করা হয় এবং শুক্রবার কৃষ্ণ দেবনাথ মারা যায়। পরিবারের অভিযোগ, বুধবার রাতে ইন্দ্রজিৎ দেবনাথ, গোবিন্দ দেবনাথ এবং শংকর দেবনাথ স্থানীয় এই তিন যুবক তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। এই তিনজনের বিরুদ্ধে নবদ্বীপ থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়।

যদিও তার মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে উত্তেজিত হয়ে পড়ে এলাকার মানুষজন। শনিবার ভোরে কৃষ্ণ দেবনাথ এর মৃতদেহ বাড়িতে আসতেই উত্তেজনা ছড়ায় এলাকায়। এলাকায় বিজেপি কর্মী সমর্থকরা তৃণমূলের দুষ্কৃতীদের হাতে খুনের অভিযোগ তুলে মৃতদেহ রাস্তায় রেখে অবরোধ করতে শুরু করে। যদিও পরিবারের তরফ থেকে জানানো হয়, এর পেছনে রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র আছে কিনা সে ব্যাপারে পরিষ্কার নয় তারা। অভিযোগের ভিত্তিতে খুনের কি কারণ থাকতে পারে তার তদন্ত শুরু করেছে নবদ্বীপ থানার পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here