ডেস্ক: রেল লাইনে বসে গল্প করছিল তিনজন। ট্রেন আসতে দেখে দৌড়ে পালাতে গিয়ে মৃত্যুর মুখে ঢলে পড়ল দুই যুবক। এখনও নিখোঁজ আরও একজন। তৃতীয় ওই ব্যাক্তি পুরুষ না মহিলা এখনও তা জানা যায়নি। দক্ষিণ ২৪ পরগণার ক্যানিং থানার পিয়ালিতে রেল লাইনে দুই যুবকের মৃত্যু ঘিরে ক্রমশ দানা বাঁধছে। রহস্য । প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, রবিবার রাতে দুজন রেল সেতুতে বসে গল্প করার সময় হঠাতই ডাউন লাইনে মাঝেরহাট ঘুটিয়ারি শরিফ লোকাল এসে পড়ায় কেউ তারা কিছু বুঝতে পেরে লাইন ধরে ছুটতে শুরু করেন। তবে লাভ হয়নি।

ট্রেন দেখে দৌড়তে গিয়ে এক যুবক রেল লাইনে পড়ে যায়। ওই যুবকের নাম প্রতীক ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তাঁর। প্রাথমিক চিকিত্সার কলকাতার চিত্তরঞ্জন থেকে মেডিক্যালে নিয়ে যাওয়ার পথে তাঁরও মৃত্যু হয়। তবে এখনও নিখোঁজ সেই তৃতীয় ব্যাক্ত। মৃত প্রতীক মণ্ডল চম্পাহাটি সুশীল কর কলেজের তৃতীয় বর্ষের ছাত্র বলে জানা গিয়েছে। দুর্ঘটনায় মৃত আরেকজন বাড়ি ভাঁডা় নিয়ে পিয়ালিতেই থাকত। ওই দুই যুবকের সঙ্গে আরও একজন ছিল, এমনটাই জানা গিয়েছে প্রত্যক্ষদর্শীদের বয়ানে। সেখানেই রহস্য দানা বেঁধেছে। ওই তৃতীয় ব্যক্তি পুরুষ না মহিলা স্থানীয়রা সে প্রসঙ্গে কিছু বলতে পারেনি ।

রবিবার রাতে পিয়ালি স্টেশনে এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটার পর সোমবার সকাল পর্যন্তও তৃতীয় জনের খোঁজ পাওয়া যায়নি। এদিকে, ঘটনার কারণ নিয়েও ধোঁয়াশা বাড়ছে। প্রত্যক্ষদর্শীদের অনেকের দাবি, যুবকদের কানে হেডফোন থাকায় ট্রেনের আওয়াজ শুনতে না পেয়ে এই দুর্ঘটনা ঘটে। যতক্ষণে ট্রেন খেয়াল করেন, ততক্ষণে অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে। অপরপক্ষের দাবি, দুই যুবককে স্পষ্ট দেখেছেন তাঁরা, তাঁদের সঙ্গে আরও এক জন ছিল। এইভাবে দুই যুবকের মর্মীন্তিক মৃত্যুতে শোকগ্রস্ত দুই ছেলের পরিবার।
ক্যানিং-এ দুই ছাত্রের মৃত্যু ঘিরে দানা বাঁধছে রহস্য

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here