news bengali

মহানগর ওয়েবডেস্ক: মার্কিন স্বরাষ্ট্র সচিব মাইক পম্পেও এ্ক সাক্ষাৎকারে বলেন, চিন দীর্ঘদিন ধরেই বিভিন্ন জায়গায় হুমকি দিয়ে চলেছে যেমন সম্প্রতি তারা ভারতের সঙ্গে তাদের সীমান্তের বিষয়ে করছে। বেজিং–এর সেনাবাহিনীর ক্ষমতা মাথায় রেখে আমেরিকা ”ভালো সহযোগী” হতে পারে কিনা সে কথা ভারতের ভাবা উচিত বলে মন্তব্য করেন পম্পেও। ফক্স নিউজের সাংবাদিকের প্রশ্নের উত্তরে সচিব জানান, চিন পরিস্থিতির সুযোগ নিতে অত্যন্ত দক্ষ এবং তাদের হুমকিও বাস্তব।

চিন–ভারত সীমান্তে এবং দক্ষিণ চিন সমুদ্রে চিনের আগ্রাসী আচারণ বিষয়ে সচিবকে প্রশ্ন করা হলে পম্পেও বলেন, ”চিনের কমিউনিস্ট পার্টি এই উদ্যোগটি দীর্ঘদিন ধরেই চালিয়ে যাচ্ছে। তারা নিশ্চিত ভাবে পরিস্থিতিকে তাদের নিজেদের স্বপক্ষে নিয়ে আসে। কিন্তু প্রত্যেকটি সমস্যাতেই হুমকি দেওয়াটা তাদের দীর্ঘদিনের রীতি।” যে হুমকি তারা ভারতের সঙ্গে তাদের সীমান্তের বিষয়ে দিচ্ছে সেই হুমকি তারা দীর্ঘদিন ধরে দিয়ে আসছে বলে জানিয়ে মার্কিন স্বরাষ্ট্র সচিব বলেন চিনা কমিউনিস্ট পার্টির সেনাবাহিনীর অগ্রগতির প্রেক্ষিতে এই হুমকিগুলোকে ফাঁপা ভাবা উচিত নয়। চিনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং সামরিক ক্ষমতা বৃদ্ধিতে অত্যন্ত আগ্রহী। কিন্তু মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা দফতর গোটা পরিস্থিতির জন্যই প্রস্তুত বলে জানান সচিব।

পম্পেও বলেন, ”আমি নিশ্চিত প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের নেতৃত্বে আমাদের প্রতিরক্ষা দফতর, আমাদের সেনাবাহিনী, আমাদের জাতীয় নিরাপত্তা সংস্থা আমেরিকার জনগণকে সুরক্ষা দিতে সক্ষম। এবং অবশ্যই সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে থাকা আমাদের মিত্র দেশ যেমন ভারত, অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ কোরিয়া, জাপান, ব্রাজিল, ইওরোপ তাদের আমরা ভালো সহযোগী হতে পারি।” এই সহযোগিতার মাধ্যমে মিত্র দেশগুলিকে আমেরিকা সেই স্বাধীনতা সুনিশ্চিত করতে পারে যে স্বাধীনতা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ভোগ করে বলে জানান পম্পেও।

ডোকালাম কাণ্ডের তিন বছর পর আবার পূর্ব লাদাখে ভারত–চিন সীমান্তে উত্তেজনা তৈরি হয়েছে। গত ৫ মে প্যাংগঙ লেকের ধারে দু’দেশের প্রায় ২০০ জন সেনা পরস্পরের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এই সংঘর্ষের আঁচ ছড়িয়ে যায় সিকিমের ভারত–চিন সীমান্ত নাকুলা পাসে। ৯ মে সেখানে দু’দেশের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। এরপরই আকসাই চিন সীমান্তে দু’দেশই সেনা জমায়েত করতে শুরু করলে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ভারত চিনের মধ্যে মধ্যস্থতা করার প্রস্তাব দেন। যদিও ভারত ও চিন উত্তেজনা প্রশমনে নিজেদের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক আলোচনাতেই আগ্রহ প্রকাশ করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here