news national

মহানগর ওয়েবডেস্ক: গতকালই জানিয়েছিলেন ঘরে ফেরানো হবে পরিযায়ী শ্রমিকদের। কথা রেখে শনিবার হরিয়ানায় আটকে থাকা পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরানোর কাজ শুরু করলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। শনিবার উত্তর প্রদেশের বিভিন্ন জেলা থেকে হরিয়ানায় পৌঁছলো একাধিক বাস। সেখানে স্বাস্থ্য পরীক্ষার পর, ঘরে ফেরার অনুমতি পেলেন পরিযায়ী শ্রমিকরা।

শুক্রবার টিম ইলেভেনের সঙ্গে বৈঠকে পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরানোর বিষয়ে আলোচনা শুরু করেছিলেন যোগী। দীর্ঘ বৈঠকের পর তিনি সিদ্ধান্ত নেন দেশ জুড়ে ছড়িয়ে থাকা উত্তরপ্রদেশের সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিককে ঘরে আনার ব্যবস্থা করবেন তিনি। যার শুরুটা হবে হরিয়ানা থেকে। কথা রেখে শুক্রবারই হরিয়ানা সরকারের সঙ্গে কথা বলে সেখানে পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরাতে বাস পাঠান উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী। রাজ্যের বিভিন্ন জেলা থেকে হরিয়ানার শামলীতে পৌঁছয় সমস্ত বাস। সেখানে হরিয়ানার বিভিন্ন জেলায় আটকে থাকা উত্তরপ্রদেশের সমস্ত শ্রমিককে নিয়ে আসার ব্যবস্থা করে খট্টর সরকার। প্রথম দফায় স্বাস্থ্য পরীক্ষা শুরু হয়েছে উত্তর প্রদেশের সমস্ত শ্রমিকের। এখান থেকেই শ্রমিকদের ফেরত নিয়ে যাচ্ছে বাস গুলি।

উত্তর প্রদেশ সরকারের তরফে জানা গেছে প্রথম দফায় শ্রমিকদের স্বাস্থ্য পরীক্ষার পর রাজ্যের যে সমস্ত জেলায় যেসব শ্রমিক এর বাড়ি সেখানে তাদের ফেরাবার ব্যবস্থা করছে সরকার। বাড়ির কাছাকাছি তৈরি হয়েছে কোয়ারেন্টাইন সেন্টার। সেখানে ১৪ দিনের জন্য রাখা হবে শ্রমিকদের। তারপর ফের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে বাড়ি ফিরিয়ে দেওয়া হবে ওই সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের। শুধু তাই নয়, কোয়ারেন্টাইন থেকে মুক্তি পাওয়ার পর শ্রমিকদের ১ হাজার টাকা ও তাদের হাতে প্রয়োজনীয় খাদ্য দ্রব্য তুলে দেবে সরকার। প্রসঙ্গত, এর আগে দিল্লি থেকে পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফিরিয়েছিল উত্তরপ্রদেশ সরকার। এরপর রাজস্থানের কোটায় আটকে থাকা পড়ুয়াদের ঘরে ফেরানোর ব্যবস্থা করেন যোগী। দেশের সমস্ত রাজ্য সরকার যখন পরিযায়ী শ্রমিকদের দুরবস্থা দেখে মুখে কুলুপ এঁটে রয়েছে সেখানেই সাহসিকতার সঙ্গে সমস্ত রাজ্য থেকে পরিযায়ী শ্রমিককে ফেরানোর সিদ্ধান্ত নিল যোগী সরকার। তার শুরুটা হল হরিয়ানা থেকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here