kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: এপ্রিল মাস পড়তে না পড়তেই যে গরমের প্রভাব শুরু হয়েছিল তার থেকে সাময়িক স্বস্তি দিল গতকালের বৃষ্টিপাত। সোমবার বিকেলের পর থেকেই ক্রমশ আঁধার নামতে শুরু করে শহর এবং রাজ্যজুড়ে। সন্ধ্যের পর এই শহরে শুরু হয় বজ্রবিদ্যুৎ সহ প্রবল বৃষ্টিপাত, সঙ্গে চলতে থাকে ব্যাপক হাওয়া। এদিন ভোর অবধি এমনই আবহাওয়া ছিল। হাওয়া মহল জানাচ্ছে আগামী তিনদিন রাজ্যে এই ধরনের আবহাওয়াই থাকবে।

গত শনিবার ৫৬ কিলোমিটার বেগে কালবৈশাখী আছড়ে পড়ে শহরে। একদিনের ফারাকেই শের কালবৈশাখী এল রাজ্যে। গতকাল ঝড়ের সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘন্টায় ৪৬ কিলোমিটার ওঠে। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, শুক্রবার পর্যন্ত ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা উজ্জ্বল। বিহার লাগোয়া উত্তরপ্রদেশের উপর একটি ঘূর্ণাবর্ত রয়েছে। একটি নিম্নচাপ অক্ষরেখাও বিস্তৃত রয়েছে। তার ফলে বঙ্গোপসাগর থেকে বিপুল পরিমাণে জলীয় বাষ্প ঢুকছে স্থলভাগে। তাই দমকা বাতাস, বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টিপাতের জোর সম্ভাবনা।

গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা বেশি হলেও উত্তরবঙ্গের পাঁচ জেলা- দার্জিলিং, কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার ও জলপাইগুড়িতে ৫০ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে কালবৈশাখী হতে পারে আগামী ২৪ ঘণ্টায়। এছাড়া দক্ষিণবঙ্গের বীরভূম, মুর্শিদাবাদ, নদিয়া, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুরেও ভারী বৃষ্টি হতে পারে। কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের অন্য জেলাতেও বজ্রবিদ্যুৎ-সহ হালকা বৃষ্টি ঝড় হওয়ার সম্ভাবনা। বিক্ষিপ্তভাবে দু-এক জায়গায় কালবৈশাখী হতে পারে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here