ডেস্ক: দুদিন আগে সোনমের বিয়েতে ব্যস্ত ছিল গোটা বলিউড। হাইপ্রোফাইল এই বিয়ের সাক্ষী হতে উপস্থিত ছিলেন অনেকেই। কিন্তু সবার নজর এড়িয়ে ঋষি কাপুর তাঁর বিতর্কের জায়গা খুঁজে নিয়েছিলেন ঠিকই । শোনা যাচ্ছে, বিয়ের আসরে ঋষি সোহেল খানের স্ত্রী-এর সঙ্গে দুর্ব্যবহার করে। সোহেলের স্ত্রী সীমা খানকে নাকি ঋষি  বলেন তাঁর ভাসুর প্রভাবসালী হওয়ায় নাকি কথাই বলেননি। এমনকি সলমান খান অনুষ্ঠানে এসেও ঋষির সঙ্গে ভাল ভাবে দেখা করে কথা বলেননি। এই অভিযোগে সীমাকে অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকল ব্যক্তিদের সামনে অপমান করেন ঋষি। শুধু এই নয় কিছু কুকথা শুনিয়ে দেন এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে।

এই বিষয় নিয়ে সীমা যখন সলমানের কাছে উপস্থিত হন তখন মেজাজ হারান তিনি। বাইরে বেড়িয়ে সলমান ঋষির খোঁজ করেন। কিন্তু ততক্ষণে ঋষি বাড়ি চলে গিয়েছেন। সেই কারণে সলমান খানও বেজায় চটে যান। আমাদের কাছে এটা অজানা নয় যে সলমান নিজের পরিবারের লোকজনেদের কত ভালোবাসেন। তাঁর পরিবারের কারোর সঙ্গে কেউ দুর্ব্যবহার করলে তিনি কিছুতেই সেটা মেনে নিতে পারেন না। তবে এই বিষয়ে সলমান কী করবেন সেটা সময় বলবে। অপরদিকে পুরো ঘটনাটি জানার পর ঋষি কাপুরের স্ত্রী নীতু কাপুর সোজা গিয়ে ক্ষমা চেয়ে নেন সোহেল খানের কাছে। ঋষি কাপুরের এই আচরন নতুন নয়। এর আগে তাঁর বই প্রকাশ অনুষ্ঠানে এক ফ্যানের সাথে দুর্ব্যবহার করেন তিনি। সেই বিষয় নিয়ে অনেক জলঘোলা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here