ডেস্ক: গোমাংস ও চুম্বন ফের নিয়ে সরগরম জাতীয় রাজনীতি। এবার এই নিয়ে মুখ খুললেন খোদ উপরাষ্ট্রমন্ত্রী ভেঙ্কাইয়া নাইডু। সোমবার বিফ পার্টি ও চুম্বন অনুষ্ঠানের মতো বিরোধিতা করে সরব হন নাইডু। একই সঙ্গে সংসদ হামলার মূলচক্রী আফজল ফাঁসির বিরুদ্ধে আন্দোলনকারীদেরও একহাত নেন তিনি।

মুম্বইয়ের এক অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে উপরাষ্ট্রপতি বলেন, ”আপনারা গরুর মাংস খেতে চাইলে খান। কিন্তু এর জন্য উৎসব আয়োজন করার কি প্রয়োজন? চুম্বন নিয়েও একই অবস্থা। আপনারা কাউকে চুমু চাইলে এর জন্য কারও অনুমতি নেওয়ার কি দরকার?” আলোচনা প্রসঙ্গে আফজল গুরুর ফাঁসির বিরুদ্ধে আন্দোলনকারীদের নিয়েও সরব হন নাইডু। তিনি বলেন, ”আফজল গুরুর কথাই ধরুন, কেউ কেউ ওর নামও জপছে। এটা কী হচ্ছে? ও আমাদের সংসদ ভবনে বিস্ফোরণ ঘটিয়ে তা ধ্বংস করে দেওয়ার চেষ্টা করেছিল।”

সম্প্রতি দেশে গোমাংস নিয়ে বিধিনিষেধ আরোপ হওয়ার পর মাদ্রাস আইআইটির ছাত্ররা ‘বিফ উত্সব’ পালন করে। এই উৎসবকে কটাক্ষ করেই মুম্বইয়ের পোদ্দার কলেজ অফ কমার্স অ্যান্ড ইকনোমিক্স-এর ৭৫ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে এই মন্তব্য করেন উপরাষ্ট্রপতি। নাইডু নিজেও স্বীকার করে যে তিনি মাংসাশী। উপরাষ্ট্রপতি বলেন, ”আমি নিজে মাংসাশী, আমাকে আজ পর্যন্ত কেউ কোনও খাবার খেতে আটকাতে পারেনি। ভোজন ব্যক্তিগত পছন্দ অনুযায়ী হওয়া উচিত।”

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here