ডেস্ক: মেয়ের বাবা বলেছিল, ‘কতটা ভালোবাসো ওকে? ওর জন্য জীবন দিতে পারবে?’ ব্যাস এইটুকুই যথেষ্ট ছিল ভোপালের যুব বিজেপি নেতা অতুল লোখান্ডের কাছে। ভালবাসার প্রমাণ দিতে মেয়ের বাড়ির সামনেই নিজেকে গুলি করে আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা করল ওই যুবক। ঘটনার জেরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ওই এলাকায়।

সূত্রের খবর, একটি মেয়েকে দীর্ঘদিন ধরে ভালোবাসত অতুল লোখান্ড নামে ভোপালের ওই যুবক। যুবকের দাবি অনুযায়ী বিয়েও করেছিল তাঁরা। কিন্তু সেই সম্পর্কে বাধ সাধে মেয়েটির বাবা। অভিযোগ, মেয়েটির বাবা ওই যুবককে জানিয়েছিল ভালবাসার প্রমাণ দিতে তাঁর মেয়ের জন্য সে মরতে পারবে কিনা? এর ঠিক পরেই মেয়ের বাড়ির কাছে নিজেকে গুলি করে আত্নহত্যার চেষ্টা করে অতুল। পুলিশ সূত্রের খবর, গুরুতর আহত অবস্থায় অতুলকে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক।

জানা গিয়েছে, ঘটনার দিন ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন অতুল যেখানে তিন লেখেন, ‘ওর(প্রেমিকার) বাবা ভালবাসার প্রমাণ দেওয়ার জন্য নিজেকে খুন করতে বলেছেন। যদি আমি বেঁচে যাই তাহলে ওনার মেয়ের সঙ্গে আমার বিয়ে দেবেন বলেছেন উনি। যদি আমার মৃত্যু হয় তাহলে আমাকে এখান থেকে নিয়ে যেও। আর যদি বেঁচে যাই তাহলে আমি নিজেই ফিরব।’ সঙ্গে আরও যোগ করে ওই যুবক লেখেন, ‘আমি তোমাকে ছাড়া থাকতে পারব না। তাই এই পরীক্ষা দিতে যাচ্ছি।’ ফেসবুকে মেয়েটির সঙ্গে নিজের একাধিক ছবিও পোস্ট করে ওই যুবক। ইতিমধ্যেই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। যদিও এই প্রসঙ্গে মেয়েটি ও মেয়েটির বাবার কোনও বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here